আগামী বাজেট হবে ৪ লাখ ৭৫ হাজার কোটি টাকার: অর্থমন্ত্রী

আপডেট: মার্চ ১৯, ২০১৮, ১২:৩৩ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, আগামী অর্থবছরের বাজেটের সম্ভাব্য আকার হবে ৪ লাখ ৬০ থেকে ৪ লাখ ৭৫ হাজার কোটি টাকা। বাজেটে সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির আওতায় প্রতি বছরই বরাদ্দ বাড়ছে। আগামীতেও আরো বাড়বে।
তিনি বলেন, জনসংখ্যা, আয়তন, সম্পদ, মানবসম্পদ বিবেচনা করে প্রতিটি জেলার ক্লাসিফিকেশন করা হয়েছে। এ ক্লাসিফিকেশন অনুযায়ী, আগামী তিন বছরের মধ্যে সারা দেশে জেলাওয়ারি বাজেট করা হবে।
গতকাল টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার ভারতেশ্বরী হোমসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস এবং ভারতেশ্বরী হোমসের বার্ষিক পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী এ কথা বলেন।
আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, ২০২১ সালে বাংলাদেশের মধ্যম আয়ের দেশ হওয়ার কথা থাকলেও ২০১৮ সালের মধ্যেই তা হয়েছে। জাতিসংঘ ২০২৪ সালে বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে স্বীকৃতি দেবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি।
অর্থমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু ছিলেন আন্তর্জাতিক মানের নেতা। তিনি কোনো দিন অন্যায়ের কাছে মাথা নত করেননি। সত্য ও ন্যায়ের পথে তিনি সবসময় থেকেছেন। বঙ্গবন্ধুর কাছে সবচেয়ে প্রিয় ছিল শিশুরা। তাই শিশুদের মাঝেই যুগ-যুগান্তরে বেঁচে থাকবেন বঙ্গবন্ধু।
নির্বাচনকালীন সরকারে বিএনপির কোনো প্রতিনিধি থাকবে কিনা, সাংবাদিকদের এ প্রশ্নের উত্তরে আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, খালেদা জিয়ার নির্বুদ্ধিতার কারণে নির্বাচনকালীন সরকারে বিএনপির কোনো প্রতিনিধিত্ব থাকবে না। কারণ জাতীয় সংসদে তাদের কোনো প্রতিনিধি নেই।
ভারতেশ্বরী হোমসের পিপিএম হলে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কুমুদিনী কল্যাণ সংস্থার পরিচালক শ্রীমতি সাহা। এ সময় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সংস্থার ব্যবস্থাপনা পরিচালক রাজিব প্রসাদ সাহা, পরিচালক (শিক্ষা) প্রতিভা মুৎসুদ্দি, ধাত্রীবিদ্যা বিশেষজ্ঞ ডা. সাহেলা খাতুন, ভারতেশ্বরী হোমসের অধ্যক্ষ প্রতিভা হালদার ও অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী চিন্ময় চন্দ। এরপর অর্থমন্ত্রী কুমুদিনী হাসপাতালের নতুন সংযোজন ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিট (আইসিইউ) উদ্বোধন করেন।
এর আগে বেলা ১১টার দিকে মন্ত্রী হেলিকপ্টারে করে কুমুদিনী হাসপাতাল মাঠে পৌঁছলে তাকে স্বাগত জানান সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি মো. একাব্বর হোসেন এমপি, কুমুদিনী কল্যাণ সংস্থার ব্যবস্থাপনা পরিচালক রাজিব প্রসাদ সাহা, পরিচালক প্রতিভা মুৎসুদ্দি, পরিচালক সম্পা সাহা, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইসরাত সাদমীন প্রমুখ। তথ্যসূত্র: বণিক বার্তা

Don`t copy text!