এএফসি কাপে লেবানন ও ভিয়েতনামের বড় জয়

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৮, ১২:৩৭ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ নারী ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাইপর্বের ‘এফ’ গ্রুপের খেলা গতকাল শনিবার থেকে কলমাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে শুরু হয়েছে। উদ্বোধনী দিনে দুটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয় ভিয়েতনাম ও সংযুক্ত আরব আমিরাত। এই ম্যাচে আমিরাতকে ৪-০ গোলে হারিয়েছে ভিয়েতনাম। দ্বিতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হয় লেবানন ও বাহরাইন। এই ম্যাচে বাহরাইনকে ৮-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে লেবাননেন মেয়েরা।
আরব আমিরাতের বিপক্ষে ভিয়েতনাম প্রথমার্ধে দুই গোল করে। দ্বিতীয়ার্ধে করে আরো দুটি গোল। ভিয়েতনামের হয়ে জোড়া গোল করেছেন পান থি এনগক ট্রাম। তিনি ১৫ ও ২৫ মিনিটে গোল দুটি করেন। দ্বিতীয়ার্ধে ৭৯ মিনিটে ডু থি নি করেন একটি গোল। আর ম্যাচের যোগ করা সময়ে (৯০+৩) বুই থি থুয়ং করেন অপর গোলটি।
এদিকে বাহরাইনের বিপক্ষে প্রথমার্ধে তিনটি গোল করে লেবানন। দ্বিতীয়ার্ধে করে ৫টি গোল। লেবাননের হয়ে হ্যাটট্রিক করেছেন নাথালি আলাবেদ। জোড়া গোল করেছেন সোফি ফায়েদ। একটি করে গোল করেছেন ক্রিস্টি মালুফ, মিনথিয়া সালহা ও জানা কোরজিয়েহ।
‘এফ’ গ্রুপে লড়ছে বাংলাদেশ, ভিয়েতনাম, লেবানন, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাহরাইন। ১৫ থেকে ২৩ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত হবে এই প্রতিযোগিতা। লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত এই গ্রুপ থেকে শীর্ষ দল সুযোগ পাবে বাছাইপর্ব খেলার। ছয় গ্রুপের শীর্ষ ছয় দল ও সেরা দুই রানার্স-আপ দল নিয়ে হবে আরেক বাছাই। দুই গ্রুপে ভাগ হয়ে সেখান থেকে চারটি দল সুযোগ পাবে চূড়ান্তপর্বে খেলার। আগেই চূড়ান্তপর্ব নিশ্চিত করে রেখেছে আয়োজক থাইল্যান্ড, ২০১৭ সালের চ্যাম্পিয়ন উত্তর কোরিয়া, রানার্স-আপ দক্ষিণ কোরিয়া ও তৃতীয় হওয়া জাপান।
২০১৬ সালে বাংলাদেশে হয়েছিল এএফসির বাছাইপর্ব। সেবার বাংলাদেশ গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে চূড়ান্তপর্বে জায়গা করে নিয়েছিল। অবশ্য থাইল্যান্ডে চূড়ান্তপর্বে আট দলের মধ্যে সপ্তম হয়েছিল।
এএফসির র‌্যাঙ্কিংয়ে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৬ নারী ফুটবল দল এখনো সপ্তম স্থানেই রয়েছে। সে কারণে ‘এফ’ গ্রুপের সেরা দল বাংলাদেশ (র‌্যাঙ্কিংয়ে)। বাংলাদেশের পর ভিয়েতনাম রয়েছে। তাদের র‌্যাঙ্কিং ১১। বাকি তিনটি দেশ এখনো এএফসির র‌্যাঙ্কিংয়ে প্রবেশ করতে পারেনি। লেবানন এসেছে প্রথমবারের মতো খেলতে। তবে বাংলাদেশ ও ভিয়েতনামের পর এই গ্রুপে অন্যতম শক্তিশালী দল লেবানন। অবশ্য আয়োজক হওয়ায় সবগুলো দলই বাংলাদেশকে ফেভারিট মানছে। পাশাপাশি তারা নিজেদের সেরা খেলাটা উপহার দেওয়ার কথাও বলেছে। এই গ্রুপে বাংলাদেশের জন্য সবচেয়ে কঠিন প্রতিপক্ষ ভিয়েতনাম। চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পথে তাদের বিপক্ষে লড়াই করতে হবে মারিয়া মান্ডা-আঁখি খাতুনদের। অবশ্য এই বাছাইপর্বকে সামনে রেখে ২০১৭ সালের ডিসেম্বর থেকেই প্রস্তুতি নিচ্ছে বাংলাদেশের মেয়েরা। ভালো করতে প্রস্তুত তারা।