এক বছর নিষিদ্ধ আফগান পেসার আফতাব

আপডেট: জুলাই ১২, ২০১৯, ১:০৩ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


বিশ্বকাপ চলাকালীন সময়ে নীতিমালা ভঙ্গের দায়ে এক বছরের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন আফগানিস্তানের আফতাব আলম। ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তাকে নিষিদ্ধ করে আফগান ক্রিকেট বোর্ড। এ শাস্তির পাশাপাশি বোর্ডের সঙ্গে এ পেসারের চুক্তিও বাতিল করা হয়েছে।
বিশ্বকাপের মাঝপথেই দেশে ফিরে আসতে হয়েছিল আফতাব আলমকে। ব্যপারটা তখন অনেকেই না জানলেও এবার আনুষ্ঠানিকভাবে জানিয়েছে আফগানিস্তান ক্রিকেট বোর্ড।
ভারতের বিপক্ষে ২২ জুন ম্যাচের পর সাউদাম্পটনের হোটেলে ফেরার পর এক নারী অতিথির সাথে খারাপ ব্যবহার করেন আফতাব। সেই ঘটনার জের ধরে তাঁর বিরুদ্ধে তদন্তের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। ২৩ জুন আইসিসির অ্যান্টি করাপশন কমিটির বৈঠকে উপস্থিত না থাকায় পরের দুই ম্যাচের জন্য তাঁকে নিষিদ্ধ করেন কোচ ফিল সিমন্স।
২৭ জুন আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হয়, আফগানিস্তানের বিশ্বকাপ স্কোয়াড থেকে বাদ দেওয়া হচ্ছে আফতাবকে। কাবুলে আফগান বোর্ডের বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে, আগামী এক বছরের জন্য আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ করা হবে আফতাবকে। একই সঙ্গে বোর্ডের সাথে তাঁর চুক্তিও স্থগিত থাকবে।
নারী অতিথির সাথে বাজে ব্যবহারের আগেও এই বিশ্বকাপে বিতর্কে জড়িয়েছিলেন আফতাব। ১৬ জুন ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের দিন স্টেডিয়ামে কিছু বন্ধুবান্ধব নিয়ে এসেছিলেন তিনি। তাদের সবাইকে ভিআইপি দর্শক হিসেবে মাঠে ঢুকতে দেওয়ার জন্য ওল্ড ট্রাফোর্ডের মাঠ কর্মকর্তাদের অনুরোধ করেন তিনি। এক পর্যায়ে অনেকটা জোর করেই একটি হসপিটালিটি রুমে ঢুকে পড়েন। আইসিসি ‘র এমন বড় টুর্নামেন্টে নিয়ম ভাঙায় তার প্রতি ক্ষুব্ধ হয়েছে আফগান বোর্ড।