এসডিজি অন্তর্ভুক্তকরণ বিষয়ক মাসব্যাপি প্রশিক্ষণ কর্মসূচি সম্পন্ন

আপডেট: জুলাই ১৯, ২০১৯, ১২:৪৪ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক


মাসব্যাপি প্রশিক্ষণ কর্মসূচির অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন স্থানীয় সরকার রাজশাহী উপ-পরিচালক পারভেজ রায়হান সোনার দেশ

উপজেলা পরিষদ ও ইউনিয়ন পরিষদের পরিকল্পনায় টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট (এসডিজি) অন্তর্ভুক্তকরণ বিষয়ক মাসব্যাপি প্রশিক্ষণ কর্মসূচি সম্পন্ন হয়েছে গতকাল বৃহস্পতিবার। রাজশাহী জেলার প্রকল্পভূক্ত ২টি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যানবৃন্দ, ৩০টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, সকল সদস্য ও ইউনিয়ন পরিষদ সচিববৃন্দ প্রশিক্ষণে অংশ নেন।
কার্যকর ও জবাবদিহিমূলক স্থানীয় সরকার (ইএএলজি) প্রকল্প- এর সূত্রে জানা যায়, ৪২ জন করে ১০ টি ব্যাচে ৪২৬ জনকে এই প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে। প্রতিটি ব্যাচ দুই দিনে হাতে কলমে প্রশিক্ষণ গ্রহণ করে। ২০ কার্য দিবসে এই প্রশিক্ষণ কর্মশালা সম্পন্ন হয়। ১০ জুন শুরু হয়ে গতকাল ১৮ জুলাই ১০ টি ব্যাচের প্রশিক্ষণ শেষ হয়। এনজিও ফোরাম ও জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়।
সূত্র মতে, প্রশিক্ষণের উদ্দেশ্য হলো এসডিজি‘র স্থানীয়করণ। অংশগ্রহণকারীগণ টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা’র (এসডিজি) প্রেক্ষাপট এবং ১৭টি লক্ষ্য ও ১৬৯টি টার্গেট সম্পর্কে অবগত হয়েছেন। তাঁরা উপজেলা ও ইউনিয়ন পরিষদের কার্যাবলী ও বিভিন্ন মেয়াদি পরিকল্পনার সাথে এসডিজি’র সমন্বয় সাধন করতে এবং
নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পরিকল্পনায় এসডিজি‘র লক্ষ্যসমূহ সংযুক্ত করতে পারবেন।
বৃহস্পতিবার সমাপনী দিনে স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক রায়হান পারভেজ বলেন, বাংলাদেশ সরকারের ভিশন-২০২১, ভিশন-২০৪১ এর সাথে এজেন্ডা- ২০৩০ (এসডিজি) সমন্বয় এবং এসডিজি স্থানীয়করণের মাধ্যমে সরকারের গৃহীত স্বল্প, মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনাসমূহ যথাযথভাবে বাস্তবায়ন করতে হলে স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান তথা উপজেলা পরিষদ ও ইউনিয়ন পরিষদের বার্ষিক, পঞ্চবার্ষিক ও অন্যান্য পরিকল্পনায় এসডিজি অন্তর্ভূকরণ অতীব জরুরি। ইএএলজি প্রকল্পের আওতায় উপজেলা পরিষদ এবং ইউনিয়ন পরিষদের এসডিজি স্থানীয়করণ দক্ষতা বৃদ্ধির উদ্দেশ্যে রাজশাহী জেলার প্রকল্পভূক্ত ২টি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যানবৃন্দ, ৩০টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, সকল সদস্য ও ইউনিয়ন পরিষদ সচিববৃন্দ এই প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছেন। তারা এই প্রশিক্ষণলব্ধ জ্ঞান ও পদ্ধতি মাঠ পর্যায়ে বাস্তবায়িত করতে পারলে ২০৩০ সালের মধ্যে এসডিজি অর্জন করা সম্ভব হবে।
প্রশিক্ষণে অংশ নেন, মোহনপুর ও বাগমারা উপজেলা চেয়ারম্যন ও ভাইস চেয়ারম্যানগণ এবং ইউপি চেয়ারম্যান ছিলেন, বাগমারার ১১ জন, গোদাগাড়ীর ৭ জন, বাঘার ৬ জন, পবার ২ জন ও পুঠিয়া, চারঘাট,, মোহনপুর থেকে ১ জন করে মোট ৩০ জন। এসব ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য ও সচিবগণ প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন।
উল্লেখ্য, স্থানীয় সরকার বিভাগ, স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমাবায় মন্ত্রণালয় এই প্রশিক্ষণ কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছে এবং কর্মসূচির দাতা সংস্থা সুইস ডেভেলপমেন্ট কো-অপারেশন (এসডিসি), ডানিডা।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ