গুরুদাসপুরে টোল বৃদ্ধির প্রতিবাদে ভ্যান চালকদের ধর্মঘট

আপডেট: জানুয়ারি ৪, ২০১৭, ১২:১৩ পূর্বাহ্ণ

গুরুদাসপুর প্রতিনিধি


নাটোরের গুরুদাসপুর পৌরসভা কর্তৃপক্ষের টোল বৃদ্ধির প্রতিবাদে ব্যাটারিচালিত ভ্যান চালকরা ধর্মঘট পালন করেছে। গতকাল মঙ্গলবারের এ ধর্মঘটে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে বিভিন্ন পয়েন্টে পুলিশ মোতায়েন করা হয়।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত বছরের জুলাই থেকে পৌরসভা এলাকায় ব্যাটারিচালিত ভ্যানগুলোর  প্রতিদিনের জন্য ৫ টাকা হারে টোল নির্ধারণ করা হয়েছিল। কিন্তু নতুন বছরের শুরুতেই তা বৃদ্ধি করে ১০ টাকা করা হয়। ওই টোল বৃদ্ধির প্রতিবাদে উপজেলার ইউনিয়ন পর্যায়ের ভ্যান চালকরা দিনভর ধর্মঘট কর্মসূচি পালন করে। এতে সাধারণ মানুষ দুর্ভোগে পড়েন।
ভ্যান চালকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, গ্রামের শতশত মানুষ বিকল্প আয়ের পথ হিসেবে ভ্যান চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করেন। এজন্য ইউনিয়ন পরিষদ তাদের কাছ থেকে কোন রকম টোল আদায় করে না। কিন্তু এসব ভ্যানগুলো পৌরসভা এলাকায় ঢুকলেই ১০ টাকা হারে টোল দিতে হচ্ছে। এটা তাদের জন্য কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ছে। প্রতিবাদ হিসেবে তারা ধর্মঘট পালন করছেন।
বিভিন্ন ইউনিয়ন এলাকা থেকে অন্তপক্ষে ১৫ জন ব্যক্তি জানালেন, গ্রামের মানুষ বিভিন্ন মালামাল বেচা-বিক্রির জন্য পৌরসভার চাঁচকৈড় হাটে আসেন। কিন্ত গতকাল মঙ্গলবার হাজার হাজার মানুষ ভ্যানে করে তাদের মালামাল আনলেও পৌরসভার সীমানায় এসে ভ্যান থেমে যায়।
ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানরা জানালেন, ভ্যানচালকদের কথা বিবেচনা করে তাদের পরিষদের পক্ষ থেকে কোন রকম টোল আদায় করা হয় না। পৌরসভা কর্তৃপক্ষের ১০ টাকা হারে টোল আদায় করায় ইউনিয়ন পর্যায়ের ভ্যানচালকরা পৌরসভা এলাকায় ঢুকে নি। এতে সাধারণ মানুষ দুর্ভোগে পড়েন।
এ বিষয়ে পৌর মেয়র শাহনেওয়াজ আলী বলেন, গত বছরের মধ্যভাগ থেকে ভ্যানচালকদের কাছ থেকে ৫টাকা করে আদায় করা হচ্ছে। কিন্তু নতুন বছরের শুরু থেকে পৌরসভার উন্নয়নের জন্য ১০ টাকা হারে টোল আদায় করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। এজন্য এলাকায় মাইকিং করে অবগত করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, পাশের পৌরসভাগুলোতে ১৫ টাকা করে টোল আদায় করছে।
গুরুদাসপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) দিলীপ কুমার দাস বলেন, অনাকাঙ্খিত ঘটনা এড়াতে  পৌরসভা ও উপজেলার সীমান্ত এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ