ঘুমাতে যাওয়ার আগে যা করবেন

আপডেট: মার্চ ১১, ২০১৮, ১২:২৯ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


দিনশেষে নিজের দিকে তাকানোর যখন সময় হয়, ততক্ষণে ঘুমাতে যাওয়ার তাড়া। যতœ না ঘুম- এই দ্বিধায় দুলতে দুলতে শেষ পর্যন্ত ঘুমকেই বেছে নেয়া। ভোর হতেই আবার নানা ব্যস্ততা। আপনার প্রতিদিনের একটুখানি উদাসীনতার মাশুল গুনতে হবে পরবর্তীতে। কারণ অযতেœর কারণে আমাদের ত্বক ধীরে ধীরে ম্লান হতে থাকে। মুখের পাশাপাশি হাত-পা, চুল, ঠোঁট, নখেরও যতœ নিতে হবে।
প্রতি রাতে পা ধুয়ে লোশন লাগিয়ে ঘুমাতে যান। এছাড়া নিয়মিত যতœ হিসেবে সপ্তাহে দু-একবার যা করতে পারেন তা হলো- রাতে পা প্রথমে সাবান দিয়ে পরিষ্কার করে, ২ টেবিল চামচ কুসুম গরম অলিভ অয়েল+১ চা চামচ লবণের মিশ্রণ তৈরি করে সেটা পায়ে ভালো করে মাসাজ করুন। এতে মৃতকোষ ঝরে যাবে, গোড়ালি নরম হবে, রক্ত চলাচল ভালো হবে। মুখের জন্য যে স্ক্রাব ব্যবহার করেন, তা দিয়েও মাসাজ করতে পারেন। ধুয়ে লোশন লাগিয়ে শুয়ে পড়ুন।
সারাদিন পর পা দুটোকে যথোপযুক্ত আরাম দিন। হাতের যতœও নিতে পারেন একইভাবে। মুখ, হাত, পা যে কোনো মাসাজই করতে হবে হালকা হাতে, আলতোভাবে। তা না হলে হিতে বিপরীত হয়ে যেতে পারে।
যাদের বড় চুল, তারা বেণি করে নিন ঘুমানোর আগে। তাতে চুল সারা রাত ঘষা খাবে না। ছোট চুল হলে খোলা রেখে শুলেও অসুবিধা নেই। তেল মাসাজ করে শুলে ঘুম ভালো হবে।
নখ ফেটে বা ভেঙে যাওয়ার সমস্যা কমাতে ঘুমানোর আগে হাত-পায়ের নখে জলপাই তেল (অলিভ অয়েল) ম্যাসাজ করে নিন। সারা রাত নখ আর্দ্রতা পাবে।
নরম গোলাপি ঠোঁট পেতে প্রতি রাতে ভ্যাসলিনের সঙ্গে অল্প লবণ মিশিয়ে ঠোঁটে ম্যাসাজ করে ধুয়ে নিন। এতে ঠোঁটের মৃত কোষ ঝরে উজ্জ্বলতা আসবে।