জনতা ব্যাংক আড়ানী শাখায় বয়স্ক ভাতার টাকা তুলতে গিয়ে নারী আহত

আপডেট: জুলাই ১৯, ২০১৯, ১২:৪৩ পূর্বাহ্ণ

বাঘা প্রতিনিধি


রাজশাহীর বাঘা উপজেলার জনতা ব্যাংক আড়ানী শাখায় বয়স্ক ভাতার টাকা তুলতে গিয়ে বেগম নামের এক নারী আহত হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। বেগম (৬৪) উপজেলার আড়ানী পৌরসভার গোচর গ্রামের ইনতাজ আলী মন্ডলের স্ত্রী।
জানা যায়, বেগম জনতা ব্যাংক আড়ানী শাখায় বয়স্ক ভাতার তালিকার মধ্যে একজন। তিনি সকাল ১০টা থেকে বয়স্ক ভাতার টাকার জন্য লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন। শাখা ব্যবস্থাপক জাফর ইকবালকে ওই নারী বারবার অসুস্থতার কথা জানালেও তিনি ওই বয়স্ক নারীর কোনো কথায় কর্ণপাত করেন নি। এক পর্যায়ে তিনি অতিগরমে অসুস্থ হয়ে লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা অবস্থায় পড়ে যান। এ বিষয়ে শাখা ব্যবস্থাপক দেখেও না দেখার ভান করে বসে ছিলেন। পরে অন্যরা তাকে মাথায় পানি ঢেলে সুস্থ করে বাড়িতে পাঠিয়ে দেন। তবে স্থানীয়রা শাখা ব্যবস্থাপকের কাছে এ বিষয়ে জানতে গেলে তাদের সঙ্গে অসদাচরণ করেন বলে অভিযোগ উঠেছে। এ এঘটনাটি স্থানীয় সাংবাদিক জেনে ঘটনাস্থলে গেলে শাখা ব্যবস্থাপক জাফর ইকবাল স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও দলীয় নেতাকর্মীদের দিয়ে সংবাদ প্রকাশ না করার জন্য সাংবাদিককে অনুরোধ করেন। শাখা ব্যবস্থাপকের সঙ্গে চা খাওয়ার জন্য অনুরোধ করেন।
স্থানীয়দের অভিযোগ জনতা ব্যাংক আড়ানী শাখার ব্যবস্থাপক ধনী ব্যক্তিদেরই শুধু সম্মান করেন। ব্যাংকের যারা সাধারণ গ্রাহক তাদের বিষয়ে তার কোনো গুরুত্ব নেই। ফলে এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য ব্যাংকের উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি কামনা করেন।
এ বিষয়ে জনতা ব্যাংক আড়ানী শাখার ব্যবস্থাপক জাফর ইকবাল বলেন, ব্যাংক কারো নিয়মে চলে না। ব্যাংক সরকারি নিয়ম অনুযায়ী চলে। যেভাবে বয়স্ক, বিধবা, প্রতিবন্ধী ভাতার টাকা দেয়া হয়, সেইভাবে দেয়া হচ্ছে। তবে এক নারী অসুস্থ হওয়ার বিষয়ে স্বীকার করেন তিনি। তবে অসুস্থ নারীর নাম ঠিকানা ও পরিচয় দিতে বাধ্য নন বলে জানান তিনি।
এ বিষয়ে জনতা ব্যাংক রাজশাহীর উপ-মহাব্যবস্থাপক তপন কুমার মুজুমদার বলেন, এ বিষয়ে তদন্ত করে আড়ানী শাখা ব্যবস্থাপকের বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ