জার্মানিতে বোমা হামলার চেষ্টায় ১২ বছরের বালক

আপডেট: ডিসেম্বর ১৮, ২০১৬, ১২:০৩ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


গত মাসে জার্মানির পশ্চিমাঞ্চলীয় টাউন লুডভিগশাফেনের একটি ক্রিসমাস মার্কেটে ১২ বছরের এক ইরাকি বালক বোমা বিস্ফোরণ ঘটানোর চেষ্টা করেছিল বলে জানিয়েছেন দেশটির রাষ্ট্রপক্ষের কৌসুলিরা।এর কয়েকদিনের মধ্যে ওই বালক টাউন হলের কাছে আরেকটি বিস্ফোরক ডিভাইস পেতে রেখেছিল বলে শুক্রবার জানিয়েছেন তারা।
নিরাপত্তা ও বিচারিক সূত্রগুলোর বরাতে ফোকাস সাময়িকী জানিয়েছে, ওই বালক ‘প্রবলভাবে কট্টরপন্থি’ এবং সে জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস) অজানা কোনো সদস্যের মাধ্যমে পরিচালিত হচ্ছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।
সরকারি কর্মকর্তারা ঘটনাটির তদন্ত করছেন বলে নিশ্চিত করেছে কার্লশ্রুয়া কেন্দ্রীয় পিপি কার্যালয়ের এক মুখপাত্র, তবে এ ঘটনার সঙ্গে আইএসের যোগাযোগের সম্ভাব্যতা নিয়ে কোনো মন্তব্য করেননি তিনি।
ওই বালক ২০০৪ সালে লুডভিগশাফেনেই জন্মেছেন। ফৌজদারি কোনো অপরাধের দায় নেওয়ার মতো বয়স হয়নি বিধায় তার বিরুদ্ধে আনুষ্ঠানিক কোনো অভিযোগ দায়ের করা হয়নি বলে জানিয়েছেন পিপি ইউবেখ স্ট্রোয়েবার।
তিনি জানান, বালকটি যুব উন্নয়ন দপ্তরের তত্ত্বাবধানে আছে এবং তার সঙ্গে সন্দেহজনক কারো কোনো যোগাযোগ আছে কিনা তা তদন্ত করে দেখছে কেন্দ্রীয় পিপি কার্যালয়।
স্ট্রোয়েবার জানান, ওই বালক ২৫ নভেম্বর ক্রিসমাস মার্কেটে একটি ব্যাগ রেখে যায়, তাতে হাতে তৈরি একটি পেরেক বোমা ছিল, কিন্তু বোমাটি বিস্ফোরিত হয়নি। এরপর ৫ ডিসেম্বর সে লুডভিগশাফেন টাউন হলের কাছে আরেকটি বিস্ফোরক ডিভাইস পেতে রেখে যায়, কিন্তু গোপন সূত্রে খবর পেয়ে পুলিশ বোমাটি নিষ্ক্রিয় করে।
ফোকাস সাময়িকীর প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বিভিন্ন সাক্ষ্যে ইঙ্গিত পাওয়া গেছে জঙ্গিদের সঙ্গে যোগ দেওয়ার জন্য গত গ্রীষ্মে বালকটি সিরিয়া যাওয়া চিন্তা করেছিল।-  বিডিনিউজ

Don`t copy text!