‘ট্রানজিট সুবিধায় কোনও দেশকে পণ্য পরিবহনের সুযোগ দেয়া হয় নি’

আপডেট: মার্চ ৬, ২০১৭, ১২:০৯ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক



বাংলাদেশের ভেতর দিয়ে ট্রানজিট সুবিধায় কোনও দেশকে পণ্য পরিবহনের সুযোগ এখনও দেয়া হয়ি ন বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তিনি বলেন, ‘কোনও দেশকে ট্রান্সজিট সুবিধা না দিলেও বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে বিদ্যমান প্রটোকল অন ইনল্যান্ড ওয়াটার ট্রান্সজিট অ্যান্ড ট্রেড (পিআইডব্লিউটিটি)-এর আওতায় ট্রান্সশিপমেন্ট সুবিধায় ভারত থেকে পণ্য পরিবহন করা হয়।’ রবিবার জাতীয় সংসদে প্রশ্ন-উত্তর পর্বে সরকার দলীয় সংসদ সদস্য নুরুন্নবী চৌধুরীর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এই তথ্য জানান।
জাতীয় পার্টির সেলিম উদ্দিনের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘ইসলামী ব্যাংক বেসরকারি খাতের একটি পাবলিক লিমিটেড কোম্পানি। ব্যাংকের শেয়ার হোল্ডাররা কোম্পানিটির মালিক। শেয়ারহোল্ডারদের দ্বারা নির্বাচিত পরিচালকরা তাদের পক্ষে ব্যাংকের স্বচ্ছতা ও গতিশীলতা আনার জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়। ইসলামী ব্যাংকে সরকারের শেয়ারের পরিমাণ মাত্র ০.০০১৩ শতাংশ হওয়ায় ব্যাংকের কার্যক্রমকে ঢেলে সাজানোর জন্য সরকারের পক্ষে কোনও বিশেষ পদক্ষেপ বা কর্মসূচি গ্রহণ করা সম্ভব নয়।’
আফম বাহাউদ্দিন নাছিমের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী জানান, ‘ব্যাংকিং চ্যানেলে গত ২০১৫-১৬ অর্থবছরে তার পূর্ববর্তী বছরের চেয়ে ২ হাজার ১৩৬ কোটি টাকা রেমিট্যান্স কম এসেছে। ওই অর্থবছরে ব্যাংকিং চ্যানেলে রেমিট্যান্স এসেছে ১ লাখ ১৬ হাজার ৮৫৭ কোটি টাকা।’ স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের প্রশ্ন-উত্তর টেবিলে উপস্থাপন করা হয়।-বাংলা ট্রিবিউন