তাজিকিস্তানে দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে চায় বাংলাদেশ

আপডেট: আগস্ট ১৬, ২০১৯, ১:২৪ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপ বাছাইয়ে আফগানিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের প্রথম ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে তাজিকিস্তানে। হঠাৎ করে আফগানদের হোম ভেন্যু তাজিকিস্তান হওয়ায় মহা বিপাকে পড়েছে বাংলাদেশ। একে তো নিজেদের পরিকল্পনা বদলাতে হচ্ছে বাফুফের, সঙ্গে খরচ বেড়ে গেছে দ্বিগুণ। তবে বাস্তবতা মেনে তাজিকিস্তানে আগেভাগে গিয়ে সেখানকার প্রিমিয়ার লিগের দুইটি দলের সঙ্গে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে চায় বাংলাদেশ।
আফগানদের বিপক্ষে প্রথমে ম্যাচটি হওয়ার কথা ছিল কাতারের রাজধানী দোহায়। সেখানেই জামাল ভূঁইয়াদের প্রস্তুতি পর্বের জন্য ব্যবস্থা করে রাখা হয়েছিল। কিন্তু কাতারকে নিজেদের হোম ভেন্যু করতে ব্যর্থ হওয়ায় শেষ পর্যন্ত তাজিকিস্তানকে বেছে নেয় তারা। ব্যস, এতেই প্রাথমিক পরিকল্পনা ভন্ডুল। দ্বিতীয়ত, তাজিকিস্তান যেতে দ্বিগুণ বিমান ভাড়া। একই সঙ্গে বিরাট ঝক্কিরও।
এর আগে যে কয়েকবার তাজিকিস্তান গেছে বাংলাদেশ, বিমানভাড়া ছিল ৬০ হাজার টাকার মতো। কিন্তু তখন যে এয়ারলাইনসে যাওয়া হতো, সেটি বন্ধ হয়ে গেছে। এখন তাজিকিস্তান যেতে অন্তত ৯০ হাজার থেকে ১ লাখ টাকা লাগছে বলে জানিয়েছে বাফুফে। ফিফার নিয়মে ২৩ জন খেলোয়াড়, কোচ-কর্মকর্তাসহ ১০ জন যাবেন। বাফুফে বাড়তি হিসেবে পাঠাচ্ছে টেকনিক্যাল অ্যান্ড স্ট্র্যাটেজিক ডিরেক্টর পল স্মলিকে। মোট ৩৪-৩৫ জনের দল যাচ্ছে।
সব মিলিয়ে তাজিকিস্তান ভেন্যু নিয়ে বেশ বেকায়দায় বাফুফে, ‘আমাদের ভালো ক্ষতি করে দিল আফগানিস্তান। এখন তো প্রায় ৩৩-৩৪ লাখ টাকা টিকিটেই লাগছে আমাদের। তা ছাড়া যাওয়াটাও অনেক ঝামেলার।’ বলেন বাফুফে সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ।
আর এখন পরিবর্তিত পরিকল্পনায় সরাসরি তাজিকিস্তান গিয়ে সেখানেই দিন ৮-৯ দিন ক্যাম্প করবে বাংলাদেশ দল। সম্ভবত ১ সেপ্টেম্বর তাজিকিস্তান গিয়ে ১০ তারিখ ম্যাচের আগে স্থানীয় লিগের শীর্ষ ক্লাব দলের সঙ্গে গোটা দুই অনুশীলন ম্যাচ খেলা হবে। দুটি ম্যাচের ব্যবস্থা করে দিতে তাজিকিস্তান ফুটবল ফেডারেশনের কাছে অনুরোধ করেছে বাফুফে।
তার আগে ঢাকায় সপ্তাহখানেক অনুশীলন হবে। বাংলাদেশ একটু বেশিই সময় নিয়ে ফেলেছে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের মতো গুরুত্বপূর্ণ অভিযানে নামার প্রস্তুতি নিতে। কোচ জেমি ডে তো ঢাকাতেই নেই। ফিরবেন ১৮ আগস্ট। জাতীয় দলের ম্যাচ শেষেই জেমি ডে ইংল্যান্ড চলে যান। সেখানে প্রায় দেড়-দুই মাস থাকেন। প্রতিটি ম্যাচের আগে-পরে এমনটা দেখা যাচ্ছে। বাফুফে বলছে, ঢাকায় কাজ নেই তাই ছুটিতে কোচ।
যা-ই হোক, কোচ ফেরার পরদিন ১৯ আগস্ট জাতীয় দল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা। সেই সভাতেই তাজিকিস্তান যাওয়ার সফরসূচি চূড়ান্ত হওয়ার কথা। তবে বাংলাদেশ স্কোয়াড এখনো ঘোষণাই করা হয়নি। হাতে সময় না থাকায় বেশি খেলোয়াড় ডাকা হবে না ক্যাম্পে। লিগ রানার্সআপ আবাহনীর খেলোয়াড়েরা এএফসি কাপে উত্তর কোরিয়ার ক্লাবের সঙ্গে দুটি ম্যাচ শেষ করেই ক্যাম্পে যোগ দেবেন। ম্যাচ দুটি ২১ (ঢাকায়) ও ২৮ আগস্ট।