নারী ক্রেতার ট্রাউজারে টান, জেলে ম্যাকডোনাল্ড ম্যানেজার

আপডেট: অক্টোবর ২৪, ২০১৬, ১০:৪২ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক
মজা করে এক নারী ক্রেতার ট্রাউজারে টান মেরেছিলেন ম্যাকড্নোাল্ডের একজন ব্রাঞ্চ ম্যানেজার। উপস্থিত এক ক্রেতার অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে বিচার শেষে জেলে ঢুকিয়ে দেয়া হয়েছে সেই ম্যানেজারকে। স্টুয়ার্ট হাব্বার্ড (২৬) ম্যাকডোনাল্ডের নটিংহাম ব্রাঞ্চের ম্যানেজার ছিলেন।
এ বছরের প্রথম দিকে ১৮ ফেব্রুয়ারি রাত একটার দিকে বার জন ক্রেতা এবং পাঁচ স্টাফের সামনে ওই নারীর ট্রাউজার ধরে টান মেরেছিলেন। উপস্থিত ক্রেতাসহ ওই নারী খুবই বিব্রত বোধ করছিলেন তখন।
যে নারী (নাম প্রকাশ করা যাবে না) এই বিব্রতকর পরিস্থিতির মুখোমুখি হন তিনি জানান এতে ‘মারাত্মক লজ্জায় পড়েছেন।’ এখন রাস্তায় বের হলে কেউ যদি এই ঘটনার কথা উল্লেখ করে বলে ‘এ নারীর ট্রাউজার খোলা হয়েছিল ম্যাকডোনাল্ডে’ তাহলে আরও কষ্টকর অভিজ্ঞতার মধ্য দিয়ে যেতে হবে।
লজ্জায় ওই নারী কোন অভিযোগ না করলেও উপস্থিত এক নারী ক্রেতা পুলিশের কাছে অভিযোগপত্র পেশ করেন। প্রায় বিশজন মানুষের সামনে একজন নারীর ট্রাউজার খুলে ফেলার কারণে শরীরের স্পর্শকাতর অংশ দৃষ্টিগোচর হওয়াটি একটি বিব্রতকর ঘটনা ছিল। জনসমক্ষে এরকম কাজ গ্রহণযোগ্য নয়। আর ওই নারী ক্রেতার জন্য খুবই মানহানিকর।
এ অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে পুলিশ ম্যাকডোনাল্ডের ম্যানেজার হাবার্ডকে গ্রেফতার করেন। আদালতে বিচারক স্টুয়ার্ট রাফার্টি ২৮ দিন সাজা দেন এবং ৫০০ পাউন্ড জরিমানা করেন; যা ওই নারীকে দিতে হবে।
এদিকে ম্যাকডোনাল্ড কর্তৃপক্ষ এই অসদাচরণের জন্য ম্যাকডোনাল্ডের নটিংহামশায়ার ব্রাঞ্চের ম্যানেজারের পদ থেকে তাকে বহিষ্কৃত করেছে। সূত্র : ডেইলি মেইল