পদ্মা সেতু নিয়ে গুজব, গ্রেপ্তার ৫

আপডেট: জুলাই ১৩, ২০১৯, ১২:৫৯ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


‘পদ্মা সেতু নির্মাণে মানুষের মাথা লাগবে’ সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন গুজব ছড়িয়ে জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টি করছে একটি কুচক্রি মহল। গুজব প্রতিরোধে মাঠে নেমেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। শুক্রবার বিকেল পর্যন্ত দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে ৫ জনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব।
র‌্যাব সদর দপ্তর থেকে জানানো হয়, গুজবের তদন্তে নামে সাইবার মনিটরিং সেল। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কয়েকটি ফেসবুক আইডি সনাক্ত করা হয়। এসব আইডি থেকে পদ্মা সেতু সংক্রান্ত মানুষের মাথা লাগবে এরকম গুজব ছড়ানো হয়। পদ্মা সেতু নির্মাণকাজে মানুষের মাথা লাগবে যা সংগ্রহে দেশের বিভিন্ন স্থানে বিষাক্ত স্প্রে পার্টির বের হয়েছে বলে গুজব ছড়ায়। যা সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপকভাবে ভাইরাল হয়। জনমনে ভীতি সঞ্চার হয়। পরে র‌্যাব গোয়েন্দারা কড়া নজরদারি অব্যাহত রাখে এবং দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে ৫ জনকে গ্রেপ্তার করে।
র‌্যাবের বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, মো. আকরাম হোসেনকে ১১ জুলাই আশুলিয়ার ইপিজেড এলাকায় অভিযান চালিয়ে গ্রেপ্তার করা হয়। নিউজআই টুয়েন্টিফোর ডটকম নামে নিউজ পোর্টাল থেকে এরকম একটি ভিত্তিহীন গুজব পোস্ট করা হয়।
আকরামের দেয়া তথ্যে শুক্রবার দুপুরে চট্টগ্রাম জেলার আনোয়ারা থানার তৈলারদ্বীপ সাকিন তৈলারদ্বীপ সার্কুরাল রোডের পাশের একটি বাড়ি থেকে মো. শহিদুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার দেওয়া তথ্যে মো. আরমান হোসাইনকে একই এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।
বৃহস্পতিবার রাতে মৌলভীবাজার জেলার সদর থানার নতুন বাজার রোড এলাকা থেকে মো. ফারুক এবং সর্বশেষ শুক্রবার দুপুরে কুমিল্লার লাকসাম থানার আশাগী এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে মো. হায়াতুন নবী ওরফে নবীকে গ্রেপ্তার করা হয়।
তথ্যসূত্র: রাইজিংবিডি