বাগাতিপাড়ায় পেঁয়াজ বাজার মনিটরিংয়ে ইউএনও

আপডেট: অক্টোবর ৪, ২০১৯, ১:২৮ পূর্বাহ্ণ

নাটোর প্রতিনিধি


পেঁয়াজের দাম যাচাইয়ে বাগাতিপাড়ার দয়ারামপুর বাজার মনিটরিং করেন ইউএনও প্রিয়াংকা দেবী পাল-সোনার দেশ

সাম্প্রতিক সময়ে পেঁয়াজের আকষ্মিক মূল্যবৃদ্ধিতে নাটোরের বাগাতিপাড়ায় দাম যাচাইয়ে বাজার মনিটরিংয়ে মাঠে নেমেছেন ইউএনও প্রিয়াংকা দেবী পাল। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার বিভিন্ন বাজার ঘুরে পেঁয়াজের বর্তমান বাজার দর যাচাই করেন তিনি। এসময় বিক্রেতাদের পেঁয়াজের দাম নিয়ে কৃত্রিম সঙ্কট তৈরির ক্ষেত্রে সতর্ক থাকার পরামর্শ দেন এবং এ নিয়ে প্রশাসনের শক্ত অবস্থানের কথা তাদের অবহিত করেন। আচমকা বাজারে ইউএনও’র নজরদারিকে সাধুবাদ জানিয়েছেন ক্রেতা ও সাধারণ মানুষ।
ইউএনও কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, ইউএনও প্রিয়াংকা দেবী পাল দুপুর একটার দিকে উপজেলার সবচেয়ে বড় বাজার দয়ারামপুরের কাঁচা বাজারের বিভিন্ন দোকান ঘুরে ঘুুরে দেখেন। সেখানে দেশি জাতের প্রতিকেজি পেঁয়াজ ৮০ টাকা এবং ভারতীয় পেঁয়াজ কেজি প্রতি ৭০ টাকা দরে বিক্রির চিত্র দেখতে পান। দয়ারামপুরের ওই বাজারে দোকানি ছাড়াও বাজার কমিটির সভাপতি আবদুল ওয়াহাব এবং সাধারণ সম্পাদক মাহাবুর ইসলাম মিঠুর সঙ্গে কথা বলেন এবং কৃত্রিমভাবে পেঁয়াজের মূল্য বৃদ্ধি কেউ যাতে করতে না পারে সে ব্যাপারে সজাগ থাকার নির্দেশনা দেন। পরে তিনি মালঞ্চি বাজার ও পেড়াবাড়িয়া এলাকার দোকানে পেঁয়াজের দাম যাচাই করেন। সেসময় সেখানে উপস্থিত ক্রেতাদের সঙ্গেও তিনি কথা বলেন। এদিকে এর আগে গত মঙ্গলবার পেঁয়াজের মূল্যবৃদ্ধি না করা সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করেন ইউএনও প্রিয়াংকা দেবী পাল।
এ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি তার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক পেইজে আপলোড করা হয়। বিজ্ঞপ্তিতে তিনি উল্লেখ করেন, সাম্প্রতিক সময়ে পেঁয়াজের সাময়িক মূল্যবৃদ্ধি পেয়েছে। এ সুযোগে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী অবৈধভাবে পেঁয়াজ মজুদ করে জনদুর্ভোগের সৃষ্টি করছে। এ বিষয়ে উপজেলা প্রশাসনের কঠোর অবস্থানের কথা এতে উল্লেখ্য করেন এবং কেউ যাতে অবৈধ ভাবে মজুদ করে বাজারে পেঁয়াজের মূল্য বৃদ্ধি করতে না পারে এ ব্যাপারে তিনি তথ্য দিয়ে সকলের সহায়তা কামনা করেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ