বাজারে ধানের দাম ভালো থাকায় বোরো আবাদে আগ্রহী কৃষক

আপডেট: জানুয়ারি ২৭, ২০১৮, ১২:২৮ পূর্বাহ্ণ

শিবগঞ্জ প্রতিনিধি


চাঁপাইনবাবগঞ্জে তীব্র শীতকে উপেক্ষা করে মাঠেমাঠে বোরো আবাদে ব্যস্ত কৃষকেরা। বাজারে ধানের ভালো দাম ও বাজার দর অনেকটায় স্থিতিশীল হওয়ায় এবার বোরো আবাদে বেশী আগ্রহী কৃষকরা। বীজতলার জন্মানো চারা তুলে তা মাঠে-মাঠে লাগানোর কাজ করছেন তারা। চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর, নাচোল, গোমস্তাপুর, ভোলাহাট ও শিবগঞ্জ উপজেলার মাঠেমাঠে এখন বোরো চারা রোপনের দৃশ্য।
এ বছর সদর উপজেলায় ১১ হাজার ৭শ ৫৫ হেক্টর, শিবগঞ্জ উপজেলায় ৭ হাজার ৭শ ৯০ হেক্টর, গোমস্তাপুরে ১৪ হাজার ২শ ৮৫ হেক্টর, নাচোল উপজেলায় ৬ হাজার ৭শ৬০ হেক্টর, ভোলাহাটে ৫ হাজার ৩শ০৬ হেক্টর জমিতে বোরো আবাদের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে কৃষি বিভাগ। সবমিলিয়ে ৪৫ হাজার ৮শ ৯৬ হেক্টর জমিতে বোরো আবাদের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হলেও লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে যাবে বলে জানিয়েছেন কৃষি কর্মকর্তারা।
সদর উপজেলার ঝিলিম ইউনিয়নের কয়েকটি এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, জমিতে বোরো ধান রোপণের কাজ করছেন কৃষকরা। কৃষক লোকমান আলী জানান, বর্গা নেয়া তিন বিঘা জমিতে ধান লাগানো কাজ শুরু হয়েছে। শিবগঞ্জ উপজেলার চরপাকা ইউনিয়নে গিয়ে দেখা যায়, মাঠেÑমাঠে বোরোর চারা রোপণে ব্যস্ত কৃষক।
কৃষক রকিবুল ও আসলাম জানান, শীতের কারণে বীজতলা কিছুটা ক্ষতিগ্রস্ত হলেও তা তারা কাটিয়ে উঠে বোরোর চারা লাগানোর কাজ শুরু করেছেন। আগামী এক সপ্তার মধ্যেই তাদের জমিতে চারা লাগানোর কাজ শেষ হবে বলে জানান।
চাঁপাইনবাবগঞ্জ কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপ-পরিচালক মঞ্জুরুল হুদা জানান, জেলায় এবার বোরার বীজতলা তৈরি হয়েছে ৩ হাজার ৪শ ৩০ হেক্টর জমিতে। গত বছরের চেয়ে যা ৩শ ৩০ হেক্টর বেশি। সেদিক থেকে চিন্তা করলে লক্ষ্যমাত্রার চেয়েও বেশি জমিতে বোরো আবাদ করবেন কৃষক। তিনি আরো জানান, এখন পর্যন্ত ৭ হাজার ২শ ৬০ হেক্টর জমিতে বোরো চারা রোপণের কাজ শেষ হয়েছে। বাজারে ধানের দাম ভালো পাওয়ায় কৃষক এবার বোরো আবাদে বেশি আগ্রহী হয়েছে বলে মনে করেন এ কৃষি কর্মকর্তা।