বিশ্বকাপের ‘আত্মঘাতী’ একাদশ!

আপডেট: জুলাই ১৩, ২০১৮, ১২:৫০ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


ফুটবল গোলের খেলা। গোলেই হাসি, গোলেই কান্না ফুটবল মাঠে। নিজ দলের পক্ষে গোল করতে পারলে দলের মধ্যমণি হয়েই থাকা যায় ম্যাচের বাকিটা সময়। কিন্তু প্রতিপক্ষের হয়ে নিজ জালে বল ঢোকালেই যে বিপদ! আত্মঘাতী গোলে নিজ দলের সর্বনাশ ডেকে আনার দায়টা পুরোটাই নিতে হয় নিঃসঙ্কোচে।
চলতি বিশ্বকাপের ৬২ ম্যাচ শেষে দেখা গিয়েছে এমন ১১টি গোল। যা করেছেন ১১জন ভিন্ন ভিন্ন খেলোয়াড়। তারা গোল করলেও তা প্রতিপক্ষের জালে হওয়ায় আনন্দের বদলে গ্লানিই ছিলো বেশি। এবারের আয়োজনে দেখে নেয়া যাক এখনো পর্যন্ত নিজেদের জালে গোল দেয়া সেই একাদশ:
এখনো পর্যন্ত ১১ জন খেলোয়াড় আত্মঘাতী গোল করলেও তারা ছিলেন ১০টি দলের। কারণ স্বাগতিক দেশ রাশিয়ারই ২জন খেলোয়াড় আত্মঘাতী গোলের গ্লানি নিয়ে বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিয়েছেন। তারা হলেন তারকা খেলোয়াড় ডেনিস চেরিশেভ (উরুগুয়ের বিপক্ষে), সার্জেই ইগ্নাশেভিচ (স্পেনের বিপক্ষে)।
একমাত্র গোলরক্ষক হিসেবে আত্মঘাতী গোলের তালিকায় রয়েছেন সুইজারল্যান্ডের গোলরক্ষক ইয়ান সোমার (কোস্টারিকার বিপক্ষে)। এছাড়া বড় দলের মধ্যে ব্রাজিলের ডিফেন্ডার ফার্নান্দিনহো বেলজিয়ামের বিপক্ষে কোয়ার্টার ফাইনালের ম্যাচে শেষ আত্মঘাতী গোলটি করেন।
সবমিলিয়ে ‘আত্মঘাতী’ একাদশটি হল :
ইয়ান সোমার-সুইজারল্যান্ড (কোস্টারিকার বিপক্ষে)
আজিজ বেহিচ-অস্ট্রেলিয়া (ফ্রান্সের বিপক্ষে)
আহমেদ ফাথি-মিশর (রাশিয়ার বিপক্ষে)
এডসন আলভারেজ-মেক্সিকো (সুইডেনের বিপক্ষে)
আজিজ বুহাদ্দুজ-মরক্কো (ইরানের বিপক্ষে)
ওঘেনেকারো ইতেবো-নাইজেরিয়া (ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে)
থিয়াগো সিয়োনেক-পোল্যান্ড (সেনেগালের বিপক্ষে)
ডেনিশ চেরিশেভ-রাশিয়া (উরুগুয়ের বিপক্ষে)
সার্জেই ইগ্নাশেভিচ-রাশিয়া (স্পেনের বিপক্ষে)
ইয়াসিন মেরিয়াহ-তিউনিশিয়া (পানামার বিপক্ষে)
ফার্নান্দিনহো-ব্রাজিল (বেলজিয়ামের বিপক্ষে)