বিয়ে নিয়ে যা বললেন তাসকিন

আপডেট: মার্চ ২১, ২০১৯, ১২:৩৯ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


‘ঢাকা অ্যাটাক’ সিনেমায় অভিনয় করে রাতারাতি খ্যাতি পেয়েছেন নীল চোখের অভিনেতা তাসকিন। এরপর আরও কয়েকটি সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। সম্প্রতি মুহাম্মদ মোস্তফা কামাল রাজের ‘যদি একদিন’ সিনেমায় অভিনয় করে আবারও আলোচনায়।
তবে ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই গোপনে প্রেম-বিয়ে নিয়ে গুঞ্জনের শিকার তিনি। বহু আলোচনা ও সমালোচনার জন্ম দিয়েছে তার ব্যক্তিগত সম্পর্কের নানা খবর।
সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তাসকিনের বিয়ের খবর ছড়ায়। তখন এক নারীর সঙ্গে তাসকিনের বিয়ের কিছু ছবি প্রকাশ হয়। সেগুলো পোস্ট করে অনেকেই লিখেছেন, ‘এক স্ত্রী রেখে আবারও বিয়ে করেছেন এই অভিনেতা’। এ নিয়ে বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়েছেন তাসকিন।
গুঞ্জনগুলোতে বলা হয়, অস্ট্রেলিয়াতে বিয়ে করেছিলেন তাসকিন। কিন্তু বিয়ের এক মাসের মাথায় সেই সংসার ভেঙে যায়। তবে তাসকিন এটাকে বিয়ে বলতেই নারাজ।
সম্প্রতি ‘তানভীর তারেক’ নামে একটি ইউটিউব চ্যানেলে বিয়ে নিয়ে খোলামেলা আলোচনায় অংশ নেন তিনি। সেখানে জানান, ‘ইদানীং একটা বিষয় আমাকে খুব ব্রিবত করে। ইন্টারনেটে কিছু ছবি আছে, যা গুগুলে সার্চ দিলে পাওয়া যায়। এই ছবি নিয়েই অনেকে বলছে তাসকিন বিয়ে করেছে। আমি বিয়ে করলে সবাইকে জানাবো। লুকিয়ে রাখবো না। আমার প্রেম হলেও বলে দিবো।’
তাসকিন বলেন, ‘আমার বিয়ে হওয়ার কথা ছিল, আমরা একটা সেটেলমেন্টেও গিয়েছিলাম। ওটা আসলে প্রপার ম্যারেজ ছিল না। হাজবেন্ড-ওয়াইফ হিসেবে আমরা একসঙ্গে থাকিনি। আমাদের মধ্যে স্বামী-স্ত্রী হিসেবে ওই ইন্টারাকশানটাও হয়নি। এই কারণে খুব তাড়াতাড়ি আমরা সিদ্ধান্ত নিতে পেরেছিলাম যে আমরা একসঙ্গে থাকবো না।’
এ বিষয়ে তাসকিন আরও বলেন, ‘সোশ্যাল মিডিয়াতে আসলে গুজব হয়। মানুষ বিভিন্ন ধরণের কথা বলে। আসল বিষয়টা জানতে হলে সেই ঘটনার মানুষটির সঙ্গে কথা বলতে হবে। আমার আগের বিয়ে নিয়ে যে কথা উঠেছে সে বিষয়ে এটুকুই বলতে পারি, আমার একটা বিয়ের অ্যারেঞ্জ হয়েছিল। কিন্তু তার সঙ্গে আমার হাজবেন্ড-ওয়াইফ হিসেবে ঘর করা হয়নি।’
বিয়ের এই ছবিগুলো যারা ছড়িয়েছেন তাদের অনুরোধ করে তাসকিন বলেন, ‘আমাদের বিয়ের একটা আনুষ্ঠানিকতা হয়ে ছিল। কিন্ত আমরা একসঙ্গে থাকিনি। তার এক মাসের মধ্যেই আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমরা সংসার করব না। সেই অনুষ্ঠানের কিছু ছবি যে বা যারা সোশ্যাল মিডিয়াতে ছড়িয়েছেন তাদের এগুলো সরিয়ে ফেলার অনুরোধ রইলো।’
ছোটবেলা থেকে অভিনয়ে যুক্ত তাসকিন রহমান। বয়স যখন ৮ বা ৯ বছর, বাংলাদেশ টেলিভিশনের অভিনয় ও গান দুই বিভাগ থেকেই নতুন কুঁড়ি পুরস্কার পেয়েছিলেন তাসকিন। গান ও অভিনয়ের পাশাপাশি ছবি আঁকার ব্যাপারেও আগ্রহ ছিল তার।
শিশুশিল্পী হিসেবে বাংলাদেশ টেলিভিশনের কিছু নাটকে অভিনয় করলেও চলচ্চিত্রে তাসকিন প্রথম অভিনয় করেন ১৯৯৫ সালে। সেটি ছিল ‘হৃদয় আমার’ ছবিতে আমিন খানের ছোটবেলার চরিত্রে। এরপর ২০০২ সালে লেখাপড়া করতে অস্ট্রেলিয়া চলে যান তিনি। এর মাঝে কিছু টেলিছবিতে কাজ করেছেন। ২০১৪ সালে তিনি প্রথম অভিনয় করেন ‘আদি’ ছবিতে। পরে ২০১৫ সালে ‘মৃত্যুপুরী’, ২০১৬ সালে ‘অপারেশন অগ্নিপথ’ ও ‘ঢাকা অ্যাটাক’ ছবিতে। শেষে ঢাকা অ্যাটাক দিয়েই পরিচিতি পান তিনি।