মনাকষায় গণহত্যা দিবসে নেই কোন কর্মসূচি

আপডেট: অক্টোবর ৮, ২০১৯, ১:১৯ পূর্বাহ্ণ

শিবগঞ্জ প্রতিনিধি


১৯৭১ সালে ৭ অক্টোবর শহিদ মুসলিম উদ্দিন ও তার ৫ ভাইসহ খড়িয়াল, সিংনগর, হাউসনগর গ্রামের ৭ জন নিরীহ মানুষকে দেশিয় রাজাকারদের সহায়তায় পাক বাহিনী ধরে নিয়ে যায়। তারপর মনাকষ্ াহুমায়ূন রেজা উচ্চবিদ্যালয়ের পিছনে গুলি করে হত্যা করে এক রাজাকারের জমিতে সামান্য গর্ত করে পুঁতে ফেলে।
এ দিন উপলক্ষে শহিদের উদ্দেশ্যে স্বাধীনতার পর থেকে আজ পর্যন্ত কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়নি।
অথচ এ মনাকষাতে বর্তমান সংসদ সদস্যসহ বড় বড় আওয়ামী লীগ নেতার জন্ম।
দিনটি উপলক্ষে কেন কোন কর্মসূচি নেয় হয় না, এমন প্রশ্নের উত্তরে মনাকষা ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা ইউনিটের ডেপুটি কমান্ডার প্রভাত সিংহ বলেন, সচেতনার অভাব ও স্বাধীনতা পক্ষের ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাদের কোন সহযোগিতা না পাওয়ায় আমাদের পক্ষ থেকে কোন কর্মসূচি নেয়া হয় না।
জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার মোয়াজ্জেম হোসেন মুন্টু বলেন, দুঃখ জনক হলেও সত্য যে, মনাকষার গণহত্যা দিবস সম্পর্কে আমাদের শহিদ পরিবার, মুক্তিযোদ্ধা ও স্থানীয় আ’লীগের কোন গুরুত্ব নেই। অথচ এ ১৩ জন মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের ও মুক্তিযোদ্ধাদের আত্মীয় হওয়ার কারণে নির্মম হত্যাযজ্ঞের শিকার হয়েছিলেন।
ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও শহিদ মুসলিম উদ্দিনের নাতি অধ্যক্ষ সারওয়ার জাহান শেরফান বলেন, উদ্যোগ ও চর্চার অভাবে দিনটি উপেক্ষিত থেকে যায়। তিনি আরো বলেন, ৭১’র স্মৃতি রক্ষার্থে এ দিবসটি গুরুত্ব দেয়া অনিস্বীকার্য এবং পরবর্তীতে অবশ্যই চেষ্টা করবো। জেলা আ’লীগের সিনিয়র সহসভাপতি ও মনাকষা ইউপি চেয়ারম্যান মির্জা শাহাদাৎ হোসেন খুররম বলেন, কোন প্রচার- প্রচারনা না থাকায় দিনটি উপেক্ষিত থেকে যাচ্ছে।
শহিদ পরিবার ও মুক্তিযোদ্ধাদের সহযোগিতা না করার অভিযোগটি অস্বীকার করে তিনি বলেন, তারা কোনদিনই এদিনটি উপলক্ষে কোন সহযোগিতা চাওয়াতো দূরের কথা কোন কথাই বলেনি।
জেলা যুবলীগের সাবেক সহসভাপতি ও সাবেক ছাত্রনেতা তোহিদুল আলম টিয়া বলেন, স্থানীয় আ’লীগ নেতাদের নেতৃত্বদানে অবহেলা ও মুক্তিযোদ্ধাদের উদাসীনাই দিনটি উপেক্ষিত থাকার মূল কারণ। কিন্তু দিনটি উপলক্ষে কর্মসূচি নেয়া উচিত।
সংসদ সদস্য ডা. সামিল উদ্দিন আহমদ শিমুল, বলেন ৭১ এ স্বাধীনতা যুদ্ধে এদের অবদান অনিস্বীকার্য। তবে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে শিবগঞ্জে আকস্মিক বন্যায় পানি বন্দী ও ক্ষতিগ্রস্তদের সেবায় ব্যস্ত থাকার কারণে কর্মসূচি নেয়া হয়নি। তবে পরবর্তীতে আমি নিজেই উদ্যোগ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ