মহাদেবপুরে বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও দখল চেষ্টার অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন

আপডেট: অক্টোবর ৮, ২০১৯, ১:১৮ পূর্বাহ্ণ

বদলগাছী প্রতিনিধি


নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার পার্শবর্তী পত্নীতলা উপজেলা সদরের পত্নীতলা মোড় এলাকর বাসিন্দা হোমিও চিকিৎসক রাবেয়া বেগমের বসত-বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও দখল চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় এক প্রভাবশালীর বিরুদ্ধে। মহাদেবপুর উপজেলা সদরের একটি রেস্টুরেন্টে গতকাল সোমবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে এ অভিযোগ করেন রাবেয়া বেগম।
রাবেয়া সংবাদ সম্মেলনে বলেন, তিনি দীর্ঘদিন ধরে নিজ জমিতে পাকা ঘর নির্মাণ করে পরিবার নিয়ে বসবাস করছেন। একই এলাকার জনৈক প্রভাবশালী পায়রা তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্রের কনসালটেন্ট মনির উদ্দীন তার জমিটি দখলের জন্য বিভিন্নভাবে চেষ্টা করেন। জমির কিছু অংশ পাবেন বলে মনির উদ্দীন দাবিও করেন। এরই প্রেক্ষিতে গত ৫ অক্টোবর শনিবার সকালে মনির ও তার ভাড়াটে লোকজন বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও দখল চেষ্টা করে। এ সময় তার বাড়িতে চিকিৎসা নিতে আসা উপজেলার সম্ভুপুর গ্রামের সোহরাব হেসেনের ছেলে রাব্বানী (৩৫) আহত হয়। বাড়িতে থাকা তার পরিবারের সদস্যরা পালিয়ে আত্মরক্ষা করে। পরে জরুরি হেল্পলইনে ফোন করলে পত্নীতলা থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে মনির ও তার ভাড়াটে লোকজন পালিয়ে যায়।
এ বিষয়ে অভিযুক্ত মনির উদ্দীনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, জমিটির কিছু অংশের মালিক তিনি। ওই জমি রাবেয়া দখলে রেখেছিলেন, তা দখলমুক্ত করার চেষ্টা করা হয়।
এ ব্যাপারে পত্নীতলা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) পরিমল চক্রবর্তী বলেন, এ বিষয়ে কোন লিখিত অভিযেগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ