মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় রাজশাহীবাসীর বড় উপহার: নাসিম

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০১৮, ১২:৪২ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক


মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সভা কক্ষে মতবিনিময় সভায় স্বাস্থ্য মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমসহ স্থানীয় নেতৃবৃন্দ ও মেডিকেল ঊর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষ-সোনার দেশ

মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় রাজশাহীবাসীর জন্য সবচেয়ে বড় উপহার বলে মন্তব্য করে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন,‘মানুষের দোরগোড়ায় স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেয়া প্রধানমন্ত্রীর লক্ষ্য। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় চিকিৎসকসহ সংশ্লিষ্ট সবার সহযোগিতায় বাংলাদেশের স্বাস্থ্যসেবা দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। ২২ ফেব্রুয়ারি প্রধানমন্ত্রী রাজশাহী মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন।
গতকাল বুধবার সকালে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের সভাকক্ষে আয়োজিত রাজশাহী বিভাগের স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ও চিকিৎসকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
তিনি বলেন, ‘চিকিৎসক ও নার্স সংকট মোকাবেলায় আরো ১০ হাজার ডাক্তার, পাঁচ হাজার নার্স নিয়োগ দেয়া হবে। গ্রামের মানুষের চিকিৎসাসেবা নিশ্চিত করতে আরো এক হাজার অত্যাধুনিক কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপন করা হবে। এছাড়া কনসালটেন্টদের গ্রামে পোস্টিং দেয়া হয়েছে। চিকিৎসক ও নার্সদের মা-বোনের মমতা দিয়ে রোগির সেবা করার আহবান জানান মন্ত্রী।
রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জামিলুর রহমানের সভাতিত্বে বক্তব্য দেন, নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন, রামেক হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি সাংসদ ফজলে হোসেন বাদশা, রাজশাহী মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্বিক অগ্রগতি উপস্থাপন করে উপাচার্য ডা. মাসুম হাবিব, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য নূরুল ইসলাম ঠান্ডু, রাজশাহী বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. আনিসুর রহমান, রামেক’র অধ্যক্ষ প্রফেসর ডা. আনোয়ার হাবিব, উপাধ্যক্ষ ডা. মহিবুল হাসান, রাজশাহী বিএমএ’র সভাপতি প্রফেসর ডা. এবি সিদ্দিকী, সাধারণ সম্পাদক ডা. নওশাদ আলী প্রমুখ। এসময় রাজশাহী বিভাগের সব জেলার সিভিল সার্জন, বিএমএ ও স্বাচিপের নেতৃবৃন্দসহ রামেক হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্স ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।