মোহনপুরে তাবলীগের ১৩ সদস্যকে অজ্ঞান করে টাকাসহ স্মার্ট ফোন লুট

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৯, ২:০১ পূর্বাহ্ণ

মোহনপুর প্রতিনিধি


অজ্ঞান হয়ে পড়ে আছে তাবলীগ জামাতের সদস্যরা-সোনার দেশ

রাতের খাবার খেয়ে তাবলীগ জামায়াতের ১৩ সদস্যকে অজ্ঞান করে টাকা পয়সা লুটে নিয়ে পালিয়েছে খেদমতের এক সাথী। গত মঙ্গলবার রাতে উপজেলার কেশরহাট পৌর এলাকার তিলাহারি পূর্বপাড়া জামে মসজিদে এ ঘটনাটি ঘটে। তাবলীগ জামাতের জিম্মাদার ঢাকার শেরে বাংলা নগররের জামাল উদ্দিনের ছেলে আতিয়ার রহমান তিনিও অজ্ঞান। খেদমতের ওই পলাতক ১৩ নম্বর ওই সাথী ছিলেন গাজিপুর জেলার টঙ্গি এলাকার তামগাস গ্রামের ইদ্রিস আলী মোল্লার ছেলে রাসেল মোল্লা। পেশায় সে চাকরিজীবী। গতকাল বুধবার সকালে এঘটনার খবর পেয়ে দ্রুত উদ্ধার কাজে ঘটনাস্থলে যান কেশরহাট পৌর মেয়র শহিদুজ্জামান শহিদ এবং থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোস্তাক আহম্মেদ।
সরেজমিন গিয়ে জানা গেছে, গত ১ সেপ্টেম্বর ঢাকার কাকরাইল থেকে দলের ২০ সদস্যসের এক চিল্লার জামাতটি দেয়া হয় মোহনপুরের কেশরহাট পৌর এলাকার তিলাহারি গ্রামে। এক মসজিদে তিন দিন থাকার নিয়ম রেখে জামাতটি কয়েন দিন গ্রামের অন্য মসজিদে থাকার পরে গত মঙ্গলবার পূর্বপাড়া জামে মসজিদে আসে। রিফাত কাজল নামে এক সাথী বলেন, সারাদিনের ইবাদত শেষে রাসেল নামে এক সাথীর খেদমতে ১৩ জন রাতের খাবার খায়। কিন্ত রাসেল পরে খাবেন বললেও তিনি হয়তো আর খান নি। খাবারের তালিকায় ছিল সাদা ভাত মুরগির মাংস ও ডাল। সবাই শুয়ে পড়লে রাসেল বাকি সাথীদের কাছে থাকা টাকা নিয়ে পালিয়ে যায়। ভোরে স্থানীয় মুসল্লিরা এসে আমাদের অনেক ডাকাডাকির পর আমি ও অন্য একজন সাথী চেতন পাই। তবে দাঁড়ানোর মত কোনো শক্তি ছিল না। রাসেল মসজিদের দরজাটা খুলে রেখে পালিয়ে যায়।
কেশরহাট পৌরসভার মেয়র শহিদুজ্জামান বলেন, আমার এলাকাটি তাবলীগ অধ্যুষিত এলাকা। প্রতিনিয়ত এখান থেকে বিভিন্ন এলাকার জামাত আসা যাওয়া করে থাকে। সকালে এখবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে উদ্ধারের জন্য তাদের কাছে যাই এবং চিকিৎসায় সহযোগিতা করি।
মোহনপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোস্তাক আহম্মেদ বলেন, এঘটনার খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাদের উদ্ধারের জন্য ওই মসজিদে যাই। সেখানে থাকা ১৩ জনকে উদ্ধার করে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। এখন তারা অনেকটাই সুস্থ এবং কথা বলতে পারছেন। পুলিশের পক্ষ থেকে থানায় একটি জিডি করা হয়েছে। অন্যদিকে পালিয়ে যাওয়া ওই অপরাধীকে খুঁজে বের করতে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ