শিবগঞ্জে নির্বাচন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে উৎকোচ নেয়ার দাবি, একজন বরখাস্ত

আপডেট: জুন ১২, ২০১৯, ১২:৪০ পূর্বাহ্ণ

শিবগঞ্জ প্রতিনিধি


চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরির নামে এক গ্রাহকের কাছ থেকে ৫ হাজার টাকা উৎকোচ দাবি করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ রায়হান কুদ্দুসের বিরুদ্ধে। এ নিয়ে গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দাখিল করেছেন ওই গ্রাহক রিসাত আলীর বন্ধু পৌর এলাকার বাগানটুলি গ্রামের রবিউল ইসলামের ছেলে শাফিউল ইসলাম। এ ঘটনায় উপজেলা নির্বাচন অফিসে আউটসোর্সিং কাজে কর্মরত সোহেল রানাকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে ইউএনও চৌধুরী রওশন ইসলাম।
অভিযোগে সূত্রে জানা গেছে, সোমবার সকালে রিসাত আলীর জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরির নামে ৫ হাজার টাকা উৎকোচ দাবি করেন নির্বাচন কর্মকর্তা। পরে রিসাত আলীসহ তার বন্ধুরা উৎকোচ দিতে অপরগতা প্রকাশ করে। এ সময় আইনের যথেষ্ট অবনতির আশঙ্কা থাকায় তারা ফিরে এসে ইউএনও বরাবর লিখিত অভিযোগ দাখিল করেন। অভিযোগে উল্লেখ রয়েছে, ইতোপূর্বে সাধারণ মানুষের কাছ স্মার্ট পরিচয়পত্র প্রদানে নগদ ১০০ টাকা করে উৎকোচ গ্রহণের ভিডিও ফুটেজ সংরক্ষণ রয়েছে। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা রায়হান কুদ্দুস জানান, জুলাই মাসে পরিচয়পত্র তৈরির কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে বলে গ্রাহককে জানিয়েছেন। তবে উৎকোচ নেয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেন।
এদিকে অভিযোগ পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে ইউএনও চৌধুরী রওশন ইসলাম জানান, ঘটনাটি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। এছাড়া নির্বাচন অফিসে আউটসোর্সিং কাজে নিয়োজিত সোহেল রানাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ