বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী

সংস্কৃত ভাষায় কথা বললে নিয়ন্ত্রণে থাকে ডায়াবেটিস!

আপডেট: December 14, 2019, 1:04 am

সোনার দেশ ডেস্ক


একের পর এক বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য সমালোচিত হচ্ছেন বিজেপির নেতারা। বিতর্কিত মন্তব্য করা যেন তাদের স্বভাব হয়ে গেছে। এবার বিজেপির এক সাংসদ বলে বসলেন, সংস্কৃত ভাষায় নিয়মিত কথা বললে নাকি শরীর-স্বাস্থ্য ভাল থাকে। ডায়াবেটিসের মাত্রাও নাকি কমে যায় আর নিয়ন্ত্রণে থাকে কোলেস্টেরল।
এমনটাই দাবি করেছেন বিজেপির সাংসদ গণেশ সিং। শুধু তাই নয় তার আরও দাবি, কিছু ইসলামিক ভাষাসহ বিশ্বের ৯৭ শতাংশ ভাষার ভিত্তি সংস্কৃতই। এমনটা নতুন নয়। পুরাণ, চিকিৎসা, বিজ্ঞান সবকিছু নিয়েই বারবার নানারকম ভিত্তিহীন ও হাস্যকর কথাবার্তা শোনা গেছে বিজেপি নেতাদের মুখে।
কখনও দাবি করা হয়েছে গণেশের মাথায় প্লাস্টিক সার্জারি করে হাতির মাথা বসানো হয়েছিল। কখনও বা খোদ প্রধানমন্ত্রী দাবি করেছেন ইন্টারনেট আবিষ্কারের আগেই তিনি ইমেল করে ছবি পাঠিয়েছেন। গোমূত্র ও গোদুগ্ধ নিয়ে তো বারবারই নানা অবৈজ্ঞানিক কথা সামনে এসেছে। স্বাধ্বী প্রজ্ঞা দাবি করেছিলেন, গরুর গায়ে হাত বুলিয়ে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখা যায়।
এসবের পরে এবার সংস্কৃত ভাষার উপর সম্পূর্ণ মনগড়া ও ভিত্তিহীন দাবি করলেন গণেশ সিং। সংস্কৃত কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় বিল নিয়ে একটি বিতর্ক অনুষ্ঠানে অংশ নিয়েছিলেন গণেশ। সেখানেই তিনি বলেন, ‘সংস্কৃতে কথা বললে স্নায়ুতন্ত্র শক্তিশালী হয়। নিয়ন্ত্রণে থাকে কোলেস্টেরল ও ডায়াবেটিস।’
একটি মার্কিন সংস্থা গবেষণা করে এমনটা জানিয়েছে বলে দাবি করেছেন তিনি। এরপরই গণেশ বলে বসেন, বিজ্ঞানের ক্ষেত্রে দেশের গৌরবময় অতীত জানা বেশি জরুরি। সেসব জানার জন্যও সংস্কৃত শিক্ষা দরকার।
তথ্যসূত্র: জাগোনিউজ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ