সাকিবের অনুপস্থিতিতে সঠিক ভারসাম্য পাওয়া নিয়ে শঙ্কা

আপডেট: জুলাই ১৮, ২০১৯, ১২:৫২ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


বাংলাদেশ দল সব সময় সাকিব আল হাসানের অভাবটাই সবচেয়ে বেশি অনুভব করে। সঠিক কম্বিনেশন বের করতে হিমশিম খেতে হয় টিম ম্যানেজমেন্টকে। খালেদ মাহমুদ মনে করেন, সময়ের সেরা অলরাউন্ডার না থাকায় শ্রীলঙ্কায় বাংলাদেশ দলের ভারসাম্যে ব্যাঘাত ঘটবে।
বিশ্বকাপে দারুণ ছন্দে ছিলেন সাকিব। ছয়শর বেশি রান করেছেন, নিয়েছেন ১১ উইকেট। বিশ্ব মঞ্চে নিজেকে প্রমাণ করা অলরাউন্ডার আপাতত ছুটিতে আছেন। শ্রীলঙ্কা সফরের আগে তিন দিনের ক্যাম্প তত্ত্বাবধানের দায়িত্ব পাওয়া মাহমুদ জানান, বাঁহাতি এই অলরাউন্ডারের অভাব খুব অনুভব করবেন তারা।
“সাকিবের জায়গা তো পূরণীয় নয়। সাকিব তো সাকিবই। বিশ্বের সেরা অলরাউন্ডার। ও না থাকায় স্বাভাবিকভাবে আমাদের দলের ভারসাম্যে ব্যাঘাত ঘটবে।”
সাকিবের জায়গায় তাইজুল ইসলামকে দলে নিয়েছে বাংলাদেশ। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পাঁচ বছরে স্রেফ চারটি ওয়ানডে খেলার সুযোগ মিলেছে বাঁহাতি এই স্পিনারের। মাহমুদের আশা সুযোগ পেলে তাইজুল দেখাবেন তার সামর্থ্য।
“তাইজুল ওয়ানডে খেলার সুযোগ পায় না। ভারতে দারুণ ফর্মে আছে। বিসিবি একাদশের হয়ে খেলছে। ভারতে দুই ম্যাচে ১৪ উইকেটের মতো নিয়েছে। সত্যি কথা বলতে গেলে এটা তার জন্য বড় সুযোগ। এখানে অনেকের জন্যই সুযোগ হতে পারে। হয়তো সাকিব বিভিন্ন কারণে নাও থাকতে পারে, সে জায়গায় যেই আসে নতুন করে তার জন্য এটা বড় সুযোগ।”
“সাকিব তিন নম্বরে ব্যাটিং করতো। এখন সে নাই। এখন তিন নম্বরে অন্য কেউ ব্যাট করবে। তার জন্য এটা বড় সুযোগ। তাকে সে দায়িত্বটা নিতে হবে। নিজেকে প্রমাণ করতে হবে।”
প্রথম দিনের অনুশীলনে ছিলেন মাশরাফি বিন মুর্তজা, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ, মোসাদ্দেক হোসেন, মেহেদী হাসান মিরাজ, মুস্তাফিজুর রহমান ও সৌম্য সরকার। মাহমুদউল্লাহ এখনও বোলিং শুরু করেননি।
অনুশীলনে ছিলেন হাই পারফরম্যান্স ইউনিটের ব্যাটিং কোচ ওয়াসিম জাফর, পেস বোলিং কোচ চাম্পাকা রামানায়েকে। ফিল্ডিং কোচ ছিলেন সোহেল ইসলাম। ট্রেনার যথারীতি মারিও ভিল্লাভারায়ন।-বিডিনিউজ