বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী

সিরাজগঞ্জে নবাগত পুলিশ সুপারের সঙ্গে গণমাধ্যমকর্মীদের মতবিনিময়

আপডেট: January 21, 2020, 12:43 am

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি


‘নিরাপরাধ কোন ব্যাক্তির পকেটে মাদক পুরে দিয়ে ফাঁসানোর চেষ্টা করা হলে এবং বিষয় ধরা পড়লে’ অভিযুক্ত পুলিশের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিলেন সিরাজগঞ্জের নবাগত পুলিশ সুপার হাসিবুল আলম বিপিএম।
গতকাল সোমবার দুপুরে পুলিশ সুপার কার্যালয়ে গণমাধ্যমকর্মীদের সাথে মত-বিনিময় অনুষ্ঠানে এমন আশ্বাস দেন তিনি। পদোন্নতিপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. আবু ইউসুফ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) ফোরকান শিকদার, অফিসার-ইন-চার্জ (ডিএসবি) এস.এম.রেজাউল ইসলাম ও ওসি (ডিবি) মিজানুর রহমান এ সময় উপস্থিত ছিলেন। পুলিশ সুপার আরো বলেন, মাদকের কারণে দেশের নামকরা বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী ও সম্ভাবনাময়ী অনেক যুবক বিপথগামী হয়েছেন। আমি এসব অনুধাবন করেছি বলেই শিক্ষা ক্যাডার ছেড়ে পুলিশে এসেছি। মাদকের প্রতি একবারেই জিরো টলারেন্স থাকবে আমার। সিরাজগঞ্জে মাদক নিয়ন্ত্রণে গণমাধ্যমকর্মীদের যে কোন পরামর্শ অগ্রগামী বলেও মন্তব্য করেন তিনি। প্রেসক্লাবের সভাপতি হেলাল উদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌস রবিনসহ অন্যান্যরা এ সময়ে পরামর্শমূলক বক্তব্য দেন। মানাবপাচার বন্ধে স্থানীয় পাসপোর্ট অফিসে দালালদের দৌড়াত্ম হ্রাসে এবং শহরের বিভিন্ন স্কুল-কলেজের সামনে নারী শিক্ষার্থীদের যৌন হয়রানী বন্ধে বখাটের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের পাশাপাশি মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণে জেলা সদরের খোকশাবাড়ি, ভাঙ্গাবাড়ি, শাহেদনগর, গয়লা ও একডালা মহল্লায় দ্রুত পুলিশী তৎপরতা বৃদ্ধির পরামর্শ দেন গণমাধ্যমকর্মীরা।
এদিকে, সিরাজগঞ্জ-কাজিপুর আঞ্চলিক সড়কের পিপুলবাড়িয়ায় গত ২ নভেম্বর বাগবাটি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা ইউপি সদস্য বকুল হয়দার নির্মমভাবে খুন হন। চাঞ্চল্যকর এ হত্যা মামলাটির তদন্ত গত প্রায় আড়াই মাসেও আলোর মুখ দেখেনি। এটিসহ জেলার সম্প্রতি বেশ ক’টি খুনের ঘটনার তদন্ত আরো জোরদার করতে নবাগত পুলিশ সুপারের দৃষ্টি আকর্ষন করেন গনমাধ্যমকর্মীরা। এসব বিষয়ে গতি বাড়াতে বা কার্যকরী ব্যবস্থা নিতে দ্রুত প্রক্রিয়া চলছে বলেও মত-বিনিময় অনুষ্ঠানে মন্তব্য পুলিশ সুপারের।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ