২০ নভেস্বর থেকে ২৭৫ মেগাওয়াট উৎপাদনের সম্ভাবনা ||বড়পুকুরিয়া একশ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে সরবরাহ

আপডেট: নভেম্বর ১২, ২০১৭, ১২:৫৮ পূর্বাহ্ণ

দিনাজপুর প্রতিনিধি


দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের নতুন ইউনিট থেকে উৎপাদিত ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে যুক্ত করা হয়েছে।
দিনাজপুরের পার্বতীপুর উপজেলার বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের ২৭৫ মেগাওয়াট ক্ষমতা সম্পন্ন তৃতীয় ইউনিট থেকে গত শুক্রবার মধ্যরাতে পরীক্ষামূলকভাবে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে সরবরাহ করা হয়েছে। পরীক্ষামূলকভাবে নবনির্মিত তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে ৮ ঘণ্টা মেশিন চালিয়ে উৎপাদিত ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে দেয়া হয়।
২৭৫ মেগাওয়াটের তৃতীয় ইউনিটের নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠান হারবিন ইলেকট্রনিক্স ইন্টারন্যাশনাল নির্ধারিত সময়ের মধ্যেই কয়লাভিত্তিক তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ সম্পন্ন করে পরীক্ষামূলক উৎপাদন শুরু করে। কয়লা ভিত্তিক তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রকল্প পরিচালক চৌধুরী মো. নুরুজ্জামান জানান, সফলতার সাথে প্রকল্পটি বাস্তবায়নের মাধ্যমে বিদ্যুৎ উৎপাদন শুরু হয়েছে।
প্রথম ধাপে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে সরবরাহ করা হয়েছে। ২০ নভেম্বর থেকে ২৭৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে সরবরাহ করার সম্ভাবনা উল্লেখ করে তিনি বলেন, তৃতীয় ইউনিট পুরোপুরি চালু হলে উত্তরাঞ্চলের বিদ্যুতের চাহিদা মিটবে এবং শিল্প কলকারখানা ও কৃষিতে সরবরাহ স্বাভাবিক পর্যায়ে উন্নীত হবে। আগামীতে বড়পুকুরিয়া কয়লাভিত্তিক তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে ১ হাজার মেগাওয়াট নতুন পাওয়ার প্লান্ট তৈরি পরিকল্পনা রয়েছে। বর্তমানে দুইটি ইউনিটে ৫২৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ