২৩২ রান করে বিশ্বরেকর্ড গড়লেন আমিলিয়া কার

আপডেট: জুন ১৪, ২০১৮, ১:০০ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


ছেলেদের ক্রিকেটের এক যুগেরও বেশি আগে ওয়ানডে ডাবল সেঞ্চুরি হয়েছিল মেয়েদের ক্রিকেট। তবে গত কয়েক বছরে ছেলেদের ওয়ানডেতে ডাবল সেঞ্চুরি নিয়মিত ঘটনা হলেও মেয়েদের ডাবল সেঞ্চুরি ছিল সেই একটিই। অবশেষে ২১ বছর পর আরেকটি ডাবল সেঞ্চুরি। মেয়েদের ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রানের রেকর্ড গড়েছেন নিউজিল্যান্ডের আমিলিয়া কার।
আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে নিউজিল্যান্ডের মেয়েদের রেকর্ড ভাঙা-গড়ার খেলা চলছেই। তৃতীয় ওয়ানডেতে বুধবার ডাবলিনে ইনিংস ওপেন করতে নেমে শেষ পর্যন্ত খেলে ২৩২ রানে অপরাজিত ছিলেন কার।
১৯৯৭ বিশ্বকাপে মুম্বাইয়ে ডেনমার্কের বিপক্ষে ২২৯ রানের ইনিংস খেলেছিলেন অস্ট্রেলিয়ার বেলিন্ডা ক্লার্ক। কারের তখন জন্মও হয়নি। দীর্ঘদিনের সেই রেকর্ডই এবার ভেঙে দিলেন ১৭ বছর বয়সী কার।
১৪৫ বলের ২৩২ রানের ইনিংসে কার এদিন মেরেছেন ৩১টি চার ও দুটি ছক্কা। তার ৩১টি চারও এক ইনিংসে সবচেয়ে বেশি চারের রেকর্ড। আগের রেকর্ড ছিল ভারতের দিপ্তি শর্মার। গত বছর আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষেই ১৮৮ রানের ইনিংসে দিপ্তি মেরেছিলেন ২৭টি চার।
কারের রেকর্ডের সবচেয়ে বিস্ময়কর দিক হলো, ব্যাটিংয়ে রেকর্ড গড়লেও মূলত তিনি লেগ স্পিনার। ১৬ বছর বয়সেই নিউ জিল্যান্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তিতে জায়গা পেয়ে আলোড়ন তুলেছিলেন। এই ম্যাচের আগের ১৯ ওয়ানডেতে উইকেট নিয়েছিলেন ৩১টি। এই সিরিজের আগে ৭ নম্বরের আগে ব্যাটিংই পাননি। এই সিরিজের প্রথম ম্যাচে ক্যারিয়ারে প্রথমবার পাঁচে সুযোগ পেয়ে করেন ৪৫ বলে ৮১। এবার ওপেন করতে নেমে বিশ্বরেকর্ড। এই ম্যাচের আগে ক্যারিয়ারে মোট রান ছিল ১৭৪। এই ম্যাচেই ২৩২! এদিন দ্বিতীয় উইকেটে লি কাসপারেকের সঙ্গে ২৯৫ রানের ম্যারাথন জুটি গড়েন কার। কাসপারেক করেন ১০৫ বলে ১১৩। ৫০ ওভারে নিউ জিল্যান্ড তোলে ৩ উইকেটে ৪৪০। এই নিয়ে টানা তিন ম্যাচে চারশ তুলে রেকর্ড গড়ল কিউই মেয়রা। প্রথম ম্যাচে ৪৯০ রান তুলে গড়েছিল বিশ্বরেকর্ড। পরের ম্যাচে করেছিল ৪১৮।-বিডিনিউজ