অনুমোদন না নিয়ে ভারতীয় চ্যানেল সম্প্রচার || সাতজনকে এক বছরের কারাদণ্ড

আপডেট: জানুয়ারি ২৬, ২০১৭, ১২:২০ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক



অনুমোদন না নিয়ে ভারতীয় চ্যানেল দেখানোর দায়ে রাজশাহী নগরীর পাঠানপাড়া এলাকায় অবস্থিত নিউ উত্তরা কমিউনিকেশন ক্যাবল অপারেটর কার্যালয়ে আভিযান চালিয়ে সাতজনকে গ্রেফতার করে প্রত্যেককে এক বছরের বিনাশ্রম কারাদ- দিয়েছে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। গতকাল বুধবার বিকেল ৫টার দিকে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিেেস্ট্রট সারওয়ার আলমের নেতৃত্বে এ আভিযান পরিচালনা করা হয়। এসময় ওই ক্যাবল অপারেটরে থাকা সমস্ত মালামাল জব্দ করা হয়।
গ্রেফতারকৃতরা হলেন, শাহীন রেজা (৪৬), জাহাঙ্গীর হোসেন (৪২), সাগর (৩২), পারভেজ (৪৮), শামীম হোসেন (৩৮), আতিকুল ইসলাম (৩৩) ও সাগর (২৮)। এই ক্যাবল অপারেটর কার্যালয়ের চেয়ারম্যান পলাতক থাকায় তাদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা করা হয়েছে।
র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম জানান, নিউ উত্তরা কমিউনিকেশন ক্যাবল অপারেটর থেকে তাদের অনুমোদন না থাকা সত্ত্বেও ভারত থেকে অবৈধভাবে চ্যানেল এনে তা রাজশাহী থেকে সম্প্রচার করা হচ্ছিল। এরকম ৪০টি চ্যানেল তারা সম্প্রচার করছিল। এর ফলে সরকার বিপুল পরিমাণ রাজস্ব হারাচ্ছিল। কারণ যারা রাজশাহীতে লাইসেন্স নিয়ে ডিসের ব্যবসা করে তাদের সরকারকে ভ্যাট দিতে হয়। অথচ তারা কোনো ধরনের লাইসেন্স না নিয়ে অনুমোদনহীনভাবে ভারত থেকে চ্যানেল এনে তা সম্প্রচার করছিল। এইজন্য বাংলাদেশ থেকে অবৈধভাবে হুন্ডির মাধ্যমে তারা টাকা পাঠাত। এটাও একটা অপরাধ। এছাড়া কিছু অবৈধ চ্যানেল যা বাংলাদেশে সম্প্রচারের অনুমোদন নেই তারা ওইসব চ্যানেলও সম্প্রচার করছিল।
সারওয়ার আলম বলেন, অবৈধভাবে চ্যানেল চালাতে গিয়ে এ প্রতিষ্ঠানটির মালিক প্রতি মাসে অন্তত ৩৫ লাখ টাকা ভারতে হুন্ডির মাধ্যমে পাচার করতো। তবে প্রতিষ্ঠানটির মালিক পলাতক থাকায় তাকে আটক করা যায়নি। তার বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ