অবশেষে ২২কোরবানির পশুসহ ট্রাক উদ্ধার || দুই ছিনতাইকারি গ্রেফতার

আপডেট: সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৭, ১১:৩১ পূর্বাহ্ণ

গুরুদাসপুর প্রতিনিধি


অবশেষে ২২ কোরবানির পশুসহ ছিনতাই হওয়া ট্রাক উদ্ধার করেছে গুরুদাসপুর থানা পুলিশ। পাবনা সদর উপজেলার মালঞ্চি গ্রাম থেকে গত রোববার রাতে ছিনতাইকারি চক্রের সদস্য জহুরুল ইসলামের বাড়ি থেকে ট্রাকসহ ২১টি গরু উদ্ধার করে পুলিশ।
পরে  জহুরুল ইসলামের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলা থেকে ছিনতাইকারি চক্রের দলনেতা মাহমুদ হাসান শিশিরকে (২৮) গ্রেফতার করা হয়। বর্তমানে উদ্ধার হওয়া গরু, দুইটি ট্রাকসহ গ্রেফতারকৃতরা গুরুদাসপুর থানা হেফাজতে রয়েছে।
থানাসুত্রে জানা গেছে, কুমিল্লার লাঙ্গলকোট থানার চৌগুরি গ্রামের মোস্তফা কামাল ও তার সহপাঠী হুমায়ুন কবির কোরবানি ঈদ উপলক্ষে গত বৃহস্পতিবার চাঁপাইনবাবগঞ্জের সীমান্তবর্তী রামচন্দ্রপুর পশুরহাট থেকে  ১৬ লাখ টাকায় ২২টি কোরবানির পশু কেনেন। পশুগুলো গন্তব্যে পৌঁছাতে  বাবু নামে একজন দালালের মাধ্যমে একটি ট্রাক (রাজ মেট্রো ট-১১-০১৬৯) ভাড়া করেন। পশুবাহি ট্রাকটি গত বৃহষ্পতিবার গভীররাতে বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়কের উপজেলার বিলব্যাসপুর এলাকা থেকে ছিনতাই হয়।
গরু ব্যবসায়ী মোস্তফা কামাল গতকাল সোমবার জানান,  ট্রাকটি প্রথমে ৩৬ হাজার টাকায় ভাড়া করা হয়। গরু ওঠানোর পর দালালের দাবির ৪০ হাজার টাকায় মিটমাট হয়। ট্রাকটির প্রকৃত চালক না চালিয়ে বদলি চালক রাজশাহীর জিন্নাহ ও তার সহকারি ডালিম পশুবাহি ট্রাকটি চালাচ্ছিলেন।
ট্রাকটি মহাসড়কের গুরুদাসপুর উপজেলার কাছিকাটা টোলপ্লাজা ছাড়ার পর বিলব্যাসপুর নয় নম্বর ব্রিজ  পার হলে (চট্র মেট্রো-ট-১১-৪৬৭৫) অপর একটি ট্রাক পশুবাহি ট্রাকটির গতিরোধ করে। ওই ট্রাকে ১১-১২জন ছিনতাইকারি ছিল। এক পর্যায়ে ছিনতাইকারিরা পশুবাহি ট্রাকটি নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নেয়। এরপর গরু ব্যবসায়ী মোস্তফা কামাল ও তার সহপাঠী হুমায়ুন কবিরকে ছিনতাইকারিদের ট্রাকে উঠিয়ে নিয়ে তাদের মুখ-হাত বেঁধে বেধড়ক মারপিট করে। পরে নাটোর-রাজশাহী মহাসড়কের হয়বতপুর দিয়ার পাথুরিয়া মসজিদের পাশে তাদের বস্তাবন্দি করে ফেলে দেয়। ছিনতাইকারিদের ট্রাকটিও অদুরে পড়ে ছিল। মসজিদের লোকজন আহতদের উদ্ধার করে।
মোস্তফা কামাল আরো জানান, গরুসহ ট্রাকটি গত বৃহষ্পতিবার রাতে ছিনতাই হলেও গুরুদাসপুর ও তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) থানার সীমান্ত সংক্রান্ত জটিলতার কারণে উদ্ধার অভিযান বিলম্বিত হয়েছে। সর্বশেষ গুরুদাসপুর থানা পুলিশ গরুগুলো উদ্ধার করায় সব ব্যথা ভুলে গেছি। এখন ন্যায় বিচার পাওয়ার অপেক্ষা।
এব্যাপারে মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা গুরুদাসপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) সাইফুজ্জামান বলেন, ছিনতাইকারিরা সংঘবদ্ধচক্রের সদস্য। গ্রেফতারকৃত জহুরুল ইসলাম  ও মাহমুদ হাসান শিশিরকে থানা হাজতে রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তাদের নিয়ে অন্য আসামিদের গ্রেফতারে বিভিন্ন জায়গায় অভিযান অব্যাহত রয়েছে। দ্রুত অন্যরাও গ্রেফতার হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ