অ্যালপার ডগার সায়েন্টিফিক ইনডেক্সে স্থান পেলেন রাবির ৯৯ গবেষক

আপডেট: অক্টোবর ৯, ২০২১, ১০:৩১ অপরাহ্ণ

রাবি প্রতিবেদক:


অ্যালপার ডগার (এডি) সায়েন্টিফিক ইনডেক্স র‌্যাংকিংয়ে স্থান পেয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ৯৯ গবেষক। বিশ্বের ১৩ হাজার ৫৩৪ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাত লাখ আট হাজার ৬৭৫ বিজ্ঞানী এ তালিকায় স্থান পেয়েছেন।

এডি সায়েন্টিফিক ইনডেক্সের তথ্যমতে, ১২ ক্যাটাগরিতে গবেষকদের ভাগ করা হয়েছে। এর মধ্যে এগ্রিকালচার অ্যান্ড ফরেস্ট্রি ক্যাটাগরিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাতজন, বিজনেস অ্যান্ড ম্যানেজমেন্ট ক্যাটাগরিতে একজন, ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড টেকনোলজি ক্যাটাগরিতে ২০ জন, মেডিকেল অ্যান্ড হেলথ সায়েন্স ক্যাটাগরিতে ২৪ জন, সোশ্যাল সায়েন্স ক্যাটাগরিতে দুইজন, ন্যাচারাল সায়েন্স ২৮ জন ও অন্যান্য ক্যাটাগরিতে সাতজন স্থান পেয়েছেন।

অন্যদিকে হিস্ট্রি, ফিলসফি অ্যান্ড থিওলোজি, ল অ্যান্ড লিগ্যাল স্টাডিজ, আর্টস, ডিজাইন অ্যান্ড আর্কিটেকচার, ইকোনোমিকস অ্যান্ড ইকোনোমেট্রিক্স, এডুকেশন এ পাঁচ ক্যাটাগরিতে কোনো গবেষকের নাম পাওয়া যায়নি।

এডি ইনডেক্সের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, তালিকা প্রকাশ করতে গুগল স্কলারে এইচ-ইনডেক্স এবং আই১০ ইনডেক্স স্কোর এবং সাইটেশনের ওপর ভিত্তি করে বিজ্ঞানীদের মোট এবং শেষ পাঁচ বছরের তথ্য বিশ্লেষণ করেছেন তারা। নিজ নিজ গবেষণার বিষয় অনুযায়ী গবেষকদের বিশ্ববিদ্যালয়, নিজ দেশ ও বিশ্বে গবেষকদের অবস্থান নিয়েও তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়টির সেরা পাঁচ গবেষকের তালিকাও দিয়েছে তারা। সেরা পাঁচের মধ্যে প্রথম স্থানে আছেন পপুলেশন সায়েন্স অ্যান্ড হিউম্যান রিসোর্স ডেভেলপমেন্ট বিভাগের অধ্যাপক ড. আশরাফুল ইসলাম খান।

দ্বিতীয় স্থানে আছেন ফলিত গণিত বিভাগের অধ্যাপক এম আলী আকবর। অধ্যাপক আকবর বিশ্ববিদ্যালয় ও বাংলাদেশে গণিত বিষয়ে গবেষণায় প্রথম স্থানে আছেন। এশিয়ায় তার অবস্থান ২১৫ এবং বিশ্বে অবস্থান এক হাজার ৪০৩।

তৃতীয় স্থানে আছেন ফিশারিজ বিভাগের অধ্যাপক ড. ইয়ামিন হোসেন। এগ্রিকালচার অ্যান্ড ফরেস্ট্রি ক্যাটাগরির ফিশারিজ বিভাগে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে এ সংক্রান্ত গবেষণায় অবস্থান প্রথম। বাংলাদেশে তার অবস্থান দ্বিতীয়, এশিয়ায় ৬২তম এবং বিশ্বে ৩৬৯তম অবস্থানে আছেন তিনি।

তালিকার চতুর্থ স্থানে আছেন উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. এএইচএম মাহবুবুর রহমান। বায়োলজিক্যাল সায়েন্স বিষয়ে গবেষণায় রাবিতে প্রথম, বাংলাদেশে তৃতীয় এবং এশিয়ায় ৪৮৪ তম অবস্থানে আছেন তিনি। বিশ্বে এ বিষয়ের গবেষণায় তার অবস্থান চার হাজার ২৫তম।

তালিকার পঞ্চম স্থানে আছেন জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড বায়োটেকনোলজি বিভাগের অধ্যাপক ড. আবু রেজা। অধ্যাপক আবু রেজা গবেষণা করছেন মলিকুলার বায়োলজি অ্যান্ড জেনেটিক্স নিয়ে। রাবিতে তার অবস্থান প্রথম এবং বাংলাদেশে তৃতীয়। এছাড়া এশিয়ায় ৪৯৫তম এবং বিশ্বে এ বিষয়ে গবেষণায় তিন হাজার ৩৭০তম।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ