আটক ভারতীয় জেলের বিরুদ্ধে বিজিবির মামলা, কারাগারে প্রেরণ

আপডেট: অক্টোবর ১৯, ২০১৯, ১:৪৪ পূর্বাহ্ণ

চারঘাট প্রতিনিধি


আদালতে প্রেরণের আগে চারঘাট থানায় গ্রেফতারকৃত ভারতীয় জেলেসহ পুলিশ সদস্যরা সোনার দেশ

রাজশাহীর চারঘাট সীমান্তে আটক ভারতীয় জেলের বিরুদ্ধে অবৈধভাবে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ ও নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে বাংলাদেশি জল সীমানায় মা ইলিশ ধরার অপরাধে দুটি ধারায় মামলা দায়ের করেছে বিজিবি। বৃহস্পতিবার রাতে চারঘাট বিজিবি ক্যাম্পের হাবিলদার হুমায়ুন কবীর বাদী হয়ে চারঘাট থানায় এ মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের পর শুক্রবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়।
আটক ভারতীয় নাগরিকের নাম প্রণব ম-ল। তিনি ভারতের মুর্শিদাবাদ জেলার জলঙ্গি থানার সাহেবনগর ছিড়াচর এলাকার বসন্ত ম-লের ছেলে।
চারঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সমিত কুমার কু-ু জানান, চারঘাট বিজিবির ক্যাম্পের হাবিলদার হুমায়ুন কবীর বাদি হয়ে ভারতীয় নাগরিক প্রণব ম-লকে আসামি করে বিনা পাসপোর্টে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ ও বাংলাদেশ সরকারের মা ইলিশ সংরক্ষণ আইন অমান্য করে পদ্মায় ইলিশ ধরার অপরাধে দুটি ধারায় মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে বেলা ১১টার দিকে তাকে জুডিশিয়াল আদালত-২ এ পাঠানো হয়েছে। আদালতের বিচারক শাহনাজ পারভিন শুনানি শেষে তাকে দুপুরের মধ্যেই রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। পরে তাকে কেন্দ্রীয় কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।
গত বৃহস্পতিবার সকালে রাজশাহীর চারঘাট সীমান্তে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে অনুপ্রবেশ করে পদ্মা ও বড়াল নদীর মোহনায় মা ইলিশ ধরছিলেন ভারতীয় তিন জেলে। এসময় ওই এলাকায় চারঘাট উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তার উপস্থিতিতে অভিযান পরিচালনা করছিলেন বিজিবি। তখন তাদের ইলিশ শিকার করতে দেখে আটক করতে গেলে দুইজন পালিয়ে যায় ও একজনকে আটক করে বিজিবি। পালিয়ে যাওয়া দুইজন গিয়ে বিএসএফকে খবর দিলে তখন বিএসএফ বাংলাদেশের অভ্যন্তরে প্রবেশ করে ভারতীয় জেলেকে ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে। এতে বিজিবি বাধা দিলে বিএসএফ গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোড়ে বিজিবি। পরে বিকেলে বিজিবি ও বিএসএফের মধ্যে পতাকা বৈঠকে বিএসএফ তাদের একজন সদস্য নিহত ও একজন আহত হয়েছে বলে দাবি করেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ