আফগানিস্তানে আফিমের উৎপাদন ৪৩ শতাংশ বেড়েছে

আপডেট: অক্টোবর ২৩, ২০১৬, ১০:০৬ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক
গত বছরের তুলনায় চলতি বছর আফগানিস্তানে আফিমের উৎপাদন ৪৩ শতাংশ বেড়েছে। জাতিসংঘের মাদক ও অপরাধ বিষয়ক দপ্তর (ইউএনওডিসি) রোববার এ তথ্য জানিয়েছে। সংস্থাটি জানিয়েছে, চলতি বছর আফগানিস্তানে ৪ হাজার ৮০০ মেট্রিক টন আফিম উৎপাদিত হয়েছে। গত বছর দেশটির ১ লাখ ৮৩ হাজার হেক্টর জমিতে পপি চাষ হয়েছে। চলতি বছর চাষের জমির পরিমাণ ১০ শতাংশ বেড়ে ২ লাখ ১ হাজার হেক্টর জমিতে দাঁড়িয়েছে। এছাড়া দেশটিতে পপি ক্ষেত বা ফসল ধ্বংসের পরিমানও ৯১ শতাংশ কমেছে। যে এলাকাগুলোতে সবচেয়ে বেশি আফিম উৎপাদিত হয়, সে এলাকাগুলোতে চলতি বছর নিরাপত্তা পরিস্থিতির অবনতির কারণে পপি ধ্বংস করা হয়নি।
প্রসঙ্গত, পপি ফুল থেকেই আফিম উৎপাদিত হয়। আর আফিম থেকে তৈরি হয় সর্বনাশা হেরোইন। আফগানিস্তান বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় আফিম উৎপাদনকারী দেশ। আফিম উৎপাদন আফগানিস্তানে দ-নীয় অপরাধ হিসেবে বিবেচিত হলেও দেশটির দুর্নীতিবাজ সরকারি কর্মকর্তাদের কারণে এর উৎপাদন বন্ধ করা যাচ্ছে না। এছাড়া তালেবানদের দখল করা এলাকাগুলোতে অবাধে আফিমের চাষ হয়। দেশটির দক্ষিণের হেলমন্দ প্রদেশটি তালেবানদের দখলে রয়েছে। এ অঞ্চলের ৮০ হাজার হেক্টর জমিতে পপির চাষ হয়েছে।  -রাইজিংবিডি

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ