আমেরিকায় আক্রান্ত বাঙালি অধ্যাপক

আপডেট: মার্চ ৮, ২০১৭, ১২:১০ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


কানসাসের পর এবার স্যান জো। আরও একবার বিদ্বেষী আচরণের স্বীকার হলেন বাঙালি অধ্যাপক ইন্দ্রজিৎ ব্যানার্জি। এবার সুর চড়ল আরও একধাপ। পুলিশের কাছে নিরাপত্তা চাইলে, গুরুত্ব না দেয়ার অভিযোগ। পদার্থ বিদ্যায় গবেষণা করার পর থেকে স্যান জোতে গত ৪১ বছর ধরে পাকাপাকি বাস করছেন তিনি। আর পাঁচটা সাধারণ দিনের মতো গাড়ি নিয়ে স্থানীয় একটি বাজারে গিয়েছিলেন তিনি। গাড়িতে যাওয়ার সময়ই হঠাৎ একটি ভ্যান থেকে এক যুবক তাঁকে উদ্দেশ্য করে বিদ্বেষী মন্তব্য করেন। বলা হয় ভিনদেশি হয়েও কেন তিনি মার্কিন গাড়ি চালাচ্ছেন। অত্যন্ত দ্রুত গতিতে তাঁর গাড়িটি ওভারটেক করে। একটু অসতর্ক হলেই বড় দুর্ঘটনা ঘটতে পারত। তখনই তিনি সিদ্ধান্ত নেন ৯১১-এ ফোন করে পুলিশের কাছে অভিযোগ জানাবেন। সেই মতো অভিযোগও করেন। কিন্তু ফোনের অপর প্রান্ত থেকে স্যান জো পুলিশ আধিকারিকরা জানান, কিছুক্ষণ পরে তাঁরা লোক পাঠাবেন। তারপর থেকেই আতঙ্কে রয়েছে ব্যানার্জি পরিবার। রাস্তায় এভাবে বিদ্বেষী আচরণের স্বীকার হতে হলে, বাড়িতেও যে কোনও মুহূর্তে হামলা হতে পারে। তেমন কিছু ঘটলে পুলিশও  যে তৎপর হবে না তা বিলক্ষণ বুঝতে পেরেছেন তিনি।
ট্রাম্প সরকার আসার পর থেকেই আমেরিকার বিভিন্ন এলাকায় বিদ্বেষমূলক আচরণের শিকার হতে হচ্ছে ভারতীয়দের। কানসাসের ঘটনা তাঁদের আতঙ্কিত করে রেখেছে। পর পর এই ধরনের ঘটনা ঘটতে থাকলে সে দেশে থাকাই মুশকিল হবে বলে মনে করছেন মার্কিন মুলুকে বসবাসকারী ভারতীয়রা।- আজকাল