আম পাহারায় ৯ কুকুর ও ৩ রক্ষী

আপডেট: জুন ১৮, ২০২১, ৬:৪৩ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


একটি বাগানের কয়েকটি আম রক্ষায় নয়টি কুকুর ও তিন জন প্রহরীর পাহারা বসিয়েছেন ভারতের মধ্যপ্রদেশের জবলপুরের এক দম্পত্তি। তাদের ধারণা এগুলো বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল জাত মিয়াজাকি আম। সংকল্প ও রানি পারিহরের বাগানে এই বিরল প্রজাতির দেড়শ’ গাছ থাকলেও বর্তমানে চারটি গাছে ফল ধরেছে। টাইমস অব ইন্ডিয়ার প্রতিবেদন থেকে এই তথ্য জানা গেছে।
জবলপুর জেলা শহর থেকে প্রায় ২৫ কিলোমিটার দূরে চারগাও সড়কে অবস্থিত সংকল্প ও রানি পারিহরের বাগানটি। বাগানটিতে প্রায় এক হাজার একশ’টি বিভিন্ন ধরনের গাছ রয়েছে। এরমধ্যে মিয়াজাকি আম গাছ দেড়শ’টি। এর ৫০ টি প্রথমে এবং পরে আরও একশ’টি লাগানো হয়েছে।
সংকল্প পারিহর বলেন, ‘প্রায় পাঁচ বছর আগে আমরা বিভিন্ন রঙের নারকেলের বিরল জাত খুঁজতে চেন্নাই যাই। চেন্নাই সফরের উদ্দেশ্য নিয়ে এক সাধারণ আলাপের সময়ে এক সহযাত্রী আমাদের এই বিরল প্রজাতির আম সম্পর্কে জানান। প্রথমদিকে আমি এই জাত সম্পর্কে সচেতন ছিলাম না। কিন্তু একবার ফল ধরার পর বুঝতে পারি এই গাছগুলো কোনও বিরল প্রজাতির।’
গত বছর আম চুরি হয়ে যাওয়ায় নিরাপত্তা বাড়াতে বাধ্য হয়েছেন পারিহর। তিনি বলেন, ‘গত বছর চুরির ঘটনা ঘটে। সেই কারণে আমরা নিরাপত্তা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেই। গত বছর আমাদের একটা কুকুর ছিলো, এবছর আছে নয়টি; এর মধ্যে ছয়টি জার্মান শেফার্ড আর তিনটি স্থানীয় প্রজাতির। এছাড়া আমরা তিনজন প্রহরী নিয়োগ করেছি।’
সংকল্প পারিহর জানান, ‘এখন পর্যন্ত আমরা একটা আমও বিক্রি করিনি। তবে একটা আমের জন্য এক ক্রেতা ২১০০ রুপি দিতে রাজি হয়েছিলো। এখন পর্যন্ত বিক্রির কোনও পরিকল্পনা করিনি।’
তথ্যসূত্র: বাংলাট্রিবিউন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ