ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন: কক্সবাজারে পৃথক সহিংসতার ঘটনা, গুলিতে দুইজন নিহত

আপডেট: সেপ্টেম্বর ২০, ২০২১, ৬:৫৯ অপরাহ্ণ

কক্সবাজারে নির্বাচনী সহিংসতায় নিহত হয়েছেন একজন (ফাইল ফটো)

সোনার দেশ ডেস্ক:


বাংলাদেশের ১৬০টি ইউনিয়ন ও ৯টি পৌরসভায় আজ যে নির্বাচন চলছে, তার মধ্যে অন্তত দুইটি জায়গা থেকে পাওয়া গেছে প্রাণঘাতী সহিংসতার খবর।

সোমবার সকালে কক্সবাজারের মহেশখালীতে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে একটি ভোটকেন্দ্রে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী ও বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে গোলাগুলিতে একজন নিহত হয়েছে।

প্রায় একই সময়ে কুতুবদিয়ার বড়ঘোপ ইউনিয়নের সিলটকাটায় দুই পক্ষের প্রার্থীর সমর্থকদের সহিংসতায় নিহত হয়েছেন একজন।

কক্সবাজারের সহকারী পুলিশ সুপার মো. জাহিদুল ইসলাম বিবিসি বাংলাকে বলেছেন, ”ভোটকেন্দ্রের বাইরে আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী আর বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ এবং গোলাগুলি হয়েছে। তাতে একজন নিহত হয়েছে এবং চারজন গুলিবিদ্ধ হয়েছে।”

সকাল সাড়ে ১০টার দিকে কুতুবজোম ইউনিয়নের পাঁচ নম্বর ওয়ার্ডের পশ্চিম পাড়ায় এই ঘটনা ঘটেছে।

অন্যদিকে কুতুবদিয়ার ওসি মো. ওমর হায়দার জানিয়েছেন, কুতুবদিয়ার সিলটকাটায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রর্থী, বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের এক পর্যায়ে গোলাগুলি হয়। তাতে অন্তত একজন নিহত আর পাঁচ ছয় জন আহত হয়েছে।
আহতদের কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সংঘর্ষের পর উভয় কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ স্থগিত করা হয়েছে।
সোমবার বাংলাদেশের ১৬০ ইউনিয়ন পরিষদে ভোটগ্রহণ হচ্ছে।

গত ২১শে জুন এসব পরিষদে নির্বাচন আয়োজনের কথা থাকলেও করোনাভাইরাস সংক্রমণ বাড়ার কারণে স্থগিত করা হয়েছিল।

সেই সঙ্গে নয়টি পৌরসভাতেও আজ ভোট গ্রহণ করা হচ্ছে।
তথ্যসূত্র: বিবিসি বাংলা