ইন্দোনেশিয়ার সামরিক বিমান বিধ্বস্ত, সব আরোহী নিহত

আপডেট: ডিসেম্বর ১৯, ২০১৬, ১২:০২ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


ইন্দোনেশীয় বিমান বাহিনীর একটি পরিবহন বিমান বিধ্বস্ত হয়ে ১৩ আরোহীর সবাই নিহত হয়েছেন।
বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, রোববার দেশটির তল্লাশি ও উদ্ধার সংস্থার কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, পাপুয়া প্রদেশের প্রত্যন্ত পার্বত্য এলাকায় প্রশিক্ষণ উড্ডয়ন চলাকালে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়।
তল্লাশি ও উদ্ধার সংস্থার অভিযান প্রধান ইভান রিসকি টিটাস জানিয়েছেন, স্থানীয় সময় রোববার ভোর সোয়া ৬টার দিকে গন্তব্যস্থান ওয়ামেনার কাছে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। হারকিউলিস সি১৩০ বিমানটি ভোর ৫টা ৩৫ মিনিটে টিমিকা শহর থেকে রওয়ানা হয়েছিল। তিনি আরও জানান, লিসুওয়া পর্বতের যে স্থানে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়েছে তা খুঁজে পাওয়া গেছে এবং নিহতদের লাশ উদ্ধার করে ওয়ামেনায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে। বিবিসি জানিয়েছে, নিহতদের মধ্েয তিনজন পাইলট ও অপর ১০ জন সামরিক ব্যক্তি।
ইন্দোনেশীয় বিমান বাহিনীর প্রধান আগুস সুপ্রিয়ান্তা মেট্রো টেলিভিশনকে জানিয়েছেন, খারাপ আবহাওয়ার কারণে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। বিমানটি খাদ্য সরবরাহ নিয়ে টিমিকা থেকে ওয়ামেনা যাচ্ছিল বলে জানা গেছে।
দেশটির পূর্বাঞ্চলীয় পাপুয়া প্রদেশ ভৌগলিকভাবে অত্যন্ত দুর্গম। এর কোনো কোনো এলাকায় সড়ক পথে যাওয়া সম্ভব না হওয়ায় সাধারণত বিমানযোগে মালামাল সরবরাহ করা হয়।
পাশাপাশি দেশটির আকাশপথের নিরাপত্তা ব্যবস্থাও দুর্বল। গত বছর জুনে বিমান বাহিনীর একই ধরনের অপর একটি হারকিউলিস বিমান মেদান শহর থেকে উড্ডয়নের পরপরই বিধ্বস্ত হয়েছিল। এতে শহরের আবাসিক এলাকায় বিধ্বস্ত হওয়া বিমানটির ১২ ক্রু ও ১০৯ যাত্রীসহ শহরটির আরো ২২ বাসিন্দা নিহত হয়েছিলেন।- বিডিনিউজ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ