উজ্জ্বল ত্বকের জন্য

আপডেট: মার্চ ১২, ২০১৭, ১২:১১ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক



শুধু রূপচর্চা নয়, এর জন্য চাই খাদ্যাভ্যাসে পরিবর্তন ও স্বাস্থ্যকর জীবনযাপন। রূপচর্চাবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটের এক প্রতিবেদন থেকে উজ্জ্বল ত্বক পাওয়ার কিছু উপায় সম্পর্কে জানা যায়।
তাজা ফল ও সবজি খাওয়া: যে কোনো ঋতু বা সারাদিনের কর্ম ব্যস্ততা যেমনই হোক না কেনো তার ফাঁকে ফাঁকে সবসময় তাজা ফল ও সবজি খান। এতে শরীর প্রয়োজনীয় ভিটামিন পায় যা বিষাক্ত পদার্থের পরিমাণ কমিয়ে সুস্থ শরীর ও সুন্দর ত্বক পেতে সাহায্য করে।
ভালোভাবে মেইক-আপ তোলা: ঘুমাতে যাওয়ার আগে ভালোভাবে মেইকআপ তুলুন ও ত্বক আর্দ্র রাখার জন্য ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন। ভালোভাবে মেইকআপ তোলা না হলে তা ত্বকের নানা রকমের ক্ষতি করতে পারে।
দিনে দুইবার মুখ ধোওয়া: দিনে অন্তত দুবার হালকা, ফেনা সৃষ্টিকারী ফেইসওয়াশ দিয়ে মুখ ধোওয়া উচিত।
এক্সফলিয়েট করা: তৈলাক্ত ত্বকের জন্য নিয়মিত এক্সফলিয়েট বা মৃতকোষের স্তর অপসারণ করা প্রয়োজন। এতে লোমকূপগুলো উন্মুক্ত থাকে ও ত্বক কোমল হয়।
শরীরচর্চা করা: স্বাস্থ্যসম্মত খাবার খাওয়ার পাশাপাশি নিয়মিত শরীরচর্চা অথবা শারীরিক পরিশ্রম হয় এমন কাজ করা উচিত। এতে শরীরে শক্তি, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি পায় এবং অবসাদ দূর হয়। পাশাপাশি ত্বক ও মাথায় রক্তসঞ্চালন বাড়ায়।
পানি পান করা: শরীরের আর্দ্রতা বজায় রাখার জন্য যথেষ্ট পরিমাণ পানি পান করা প্রয়োজন। তাছাড়া সারাদিন নানা রকমের খাবার খাওয়ার ফলে যে দেহে যে বিষাক্ত পদার্থ জমা হয়, তা বের করে দিতে পানি সাহায্য করে।
গোলাপ জল: প্রতি সপ্তাহে অন্তত একবার গোলাপ জল ও মুলতানি মাটি দিয়ে ফেইসপ্যাক তৈরি করে ব্যবহার করুন। এটি ত্বকে টান টান ভাব আনতে ও মুখ থেকে ক্লান্তির ছাপ দূর করতে ‘টোনার’য়ের মতো কাজ করে।
টমেটোর রস: মুখে মেখে ১৫ থেকে ২০ মিনিট পর্যন্ত অপেক্ষা করে ধুয়ে ফেলুন। এটি ত্বক পরিষ্কার করতে ও উজ্জ্বলভাব আনতে সাহায্য করে।
চোখের নিচের অংশের যতœ: অন্যতম স্পর্শকাতর জায়গায় বিশেষ যতœ নেওয়া উচিত। শসা টুকরা করে কেটে তা চোখের উপরে রেখে কয়েক মিনিট অপেক্ষা করুন। এটি ত্বককে আরাম দিতে ও ক্লান্তি দূর করতে সাহায্য করে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ