উত্তর-পশ্চিম পাকিস্তানে খোঁজ মিলল ১৩০০ বছরের পুরনো বিষ্ণু মন্দিরের

আপডেট: November 21, 2020, 4:01 pm

সোনার দেশ ডেস্ক


পাকিস্তানের উত্তর পশ্চিমে সোয়াত জেলার একটি পর্বতে খোঁজ মিলল ১,৩০০ বছর আগে নির্মিত একটি হিন্দু মন্দিরের। পাকিস্তানি ও ইতালিয়ান প্রত্নতাত্ত্বিক বিশেষজ্ঞরা এই মন্দিরটি আবিষ্কার করেছেন।
বৃহস্পতিবার এই মন্দির খোঁজের কথা জানিয়ে খাইবার পাখতুনখওয়া প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের ফজলে খালিক জানিয়েছেন, আবিষ্কৃত মন্দিরটি ভগবান বিষ্ণুর মন্দির। বারিকোট ঘুন্দাই খননের সময় এই খোঁজ পাওয়া গিয়েছে।
তিনি জানিয়েছেন, ১৩০০ বছর আগে হিন্দু শাহী আমলে হিন্দুরা এই মন্দির তৈরি করেছিল। হিন্দু শাহী হল একটি হিন্দু রাজবংশের সময়কাল যারা কিনা কাবুল উপত্যকা, পাকিস্তান , আফগানিস্তান এবং বর্তমান উত্তর-পশ্চিম ভারতে রাজত্ব করেছিল। মনে করা হচ্ছে, তাঁদের আমলেই এই বিষ্ণু মন্দির তৈরি।
খননকালে প্রত্নতাত্ত্বিকেরা মন্দিরের কাছাকাছি এলাকায় সেনানিবাস এবং প্রহরীদের থাকার জায়গারও হদিশ পায়। এথেকে সহজেই অনুমেয় যে একসময় এই মন্দির ছিল কড়া পাহারার অন্তর্ভুক্ত।
বিশেষজ্ঞরা মন্দিরের কাছে একটি পুকুরও পান, যা থেকে মনে করা যায় সেটি পূজা করার আগে স্নানের জন্য অথবা নানান ভক্তিমূলক কার্যক্রমের জন্য ব্যবহার করা হত।
ইতালিয়ান প্রত্নতাত্ত্বিক মিশনের প্রধান ডাঃ লুকা বলে৪ছেন এটি গান্ধারা সভ্যতার মন্দির। যা কিনা সোয়াত জেলায় প্রথমবারের জন্য আবিষ্কৃত হল। শুধু হিন্দুধর্মের না, বৌদ্ধধর্মের বেশ কয়েকটি উপাসনাস্থল সোয়াত জেলায়ও অবস্থিত।
তথ্যসূত্র: kolkata24x7