উপরে উঠতে কষ্ট হবে না যে সিঁড়িতে

আপডেট: জুলাই ২৩, ২০১৭, ১২:৫২ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


সিঁড়ি ভেঙে উপরে উঠতে এখন আর তেমন কষ্ট হবে না। জর্জিয়া টেক এবং ইমোরি ইউনিভার্সিটির কিছু গবেষকরা এমনই এক সিঁড়ি আবিস্কার করেছেন যা দিয়ে উপরে উঠতে বা নিচে নামতে গেলে হাঁটুতে খুব একটা চাপ পরে না। এমনকি ব্যাপারটা অনেকটা সমতলে হাঁটার মতোই।
তারা প্রেসার সেন্সর এবং স্প্রিংয়ের সমন্বয়ে এমন এক সিঁড়ি তৈরি করেছেন যা মানুষকে হাঁটু বাঁকানো থেকে মুক্তি দেবে। সুস্থ মানুষের জন্যেও এই সিঁড়ি বেশ স্বস্তিদায়ক হবে। জর্জিয়া টেক এবং ইমোরি ইউনিভার্সিটির কিছু গবেষক অভিনব এই সিঁড়ি আবিষ্কার করেছেন। তারা গাণিতিকভাবে প্রমাণ করেছেন তাদের তৈরি এই সিঁড়ি হাঁটুর ওপর প্রায় ২৬ শতাংশ চাপ কমাতে সক্ষম এবং অন্যান্য সাধারণ সিঁড়ির তুলনায় এটা পরিশ্রম কমায় প্রায় ৩৭ শতাংশ।
নতুন আবিষ্কৃত সিঁড়ির ব্যয় যেমন কম তেমনি এটা সাধারণ সিঁড়ির মতোই ব্যবহার করা যায়। একই সঙ্গে এটা বিদ্যুৎ খরচ করে খুব কম। এর প্রধান কর্মকৌশল স্প্রিং এর ওপর নির্ভরশীল।
এই ধারণার প্রবর্তকদের একজন এবং ইমোরি ইউনিভার্সিটির বায়োমেডিক্যালের অধ্যাপক লিনা টাং বলেন, এটা দিয়ে সিঁড়ি ভাঙার অর্থ আপনি যেন আপনার গাড়িতে ব্রেক কষছেন সে রকম। মানে গাড়িতে ব্রেক চাপতে যতটা শক্তি ব্যয় হয়, এই সিঁড়ি দিয়ে ওপরে উঠতে বা নামতে সে রকম শক্তি ব্যয় হবে।