এগিয়ে চলেছে সাবেক মেয়র লিটনের নগর উন্নয়ন কর্মকাণ্ড ক্ষতিগ্রস্ত বাঁধ ও সড়কের নির্মাণ কাজ পরিদর্শন

আপডেট: মে ১৪, ২০১৭, ১২:৪৮ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক


নগরীর আলূপট্টি-তালইমারি সড়ক সংস্কার কাজ ও পাচানী মাঠে ক্ষতিগ্রস্থ বাঁধ পরিদর্শন করেন নগর আ’লীগের সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ও সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারসহ নেতাকর্মীরা- সোনার দেশ

এগিয়ে চলেছে রাজশাহী সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের নগর উন্নয়ন কর্মকাণ্ড। উন্নয়নের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে গতকাল শনিবার দুপুরে মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন নগরীর পাচানি মাঠে পদ্মা নদীর পাড়ে ক্ষতিগ্রস্ত বাঁধ পরিদর্শন করেন। এছাড়া তিনি নগরীর আলুপট্রি থেকে তালাইমারি পর্যন্ত ফোর লেন রাস্তার নির্মাণ কাজ পরিদর্শন করেন।
পাচানি মাঠে ক্ষতিগ্রস্ত বাঁধ পরিদর্শনের সময় সাবেক মেয়র লিটন বলেন, এ বাঁধ সংস্কারের কাজ অতিদ্রুত শুরু করবে পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো)। আমি মেয়র থাকাকালে নদী তীরবর্তী এলাকায় পাকা রাস্তা, ড্রেন এবং রঙিন টাইলস দিয়ে ওয়াকওয়ে তৈরি করার জন্য ব্যাপক পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছিল। এরপর সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আন্তরিক সহযোগিতায় তা বাস্তবায়ন করা হয়। আর পাচানি মাঠ থেকে তালাইমারি পর্যন্ত বাঁধ সংস্কারের জন্য ইতোমধ্যে পাউবো একশ কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছে। অচিরেই একাজ শুরু হবে।
প্রসঙ্গত, রাজশাহী নগরীতে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড বাস্তবায়নের মধ্যে সাবেক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের নদীর পাড় এলাকায় বাঁধ সংস্কারসহ মনোরম পরিবেশ তৈরি একটি।
এদিকে সাবেক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের আমলে দাখিলকৃত এবং তার প্রচেষ্টায় সরকার কর্তৃক অনুমোদিত আলুপট্রি-তালাইমারি সড়কের নির্মাণ কাজ এগিয়ে চলেছে। গতকাল দুপুরে তিনি কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন করেন। এসময় লিটন বলেন, আলুপট্রি থেকে তালাইমারি পর্যন্ত সড়কটি নগরবাসীর জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এসড়কটিকে কেন্দ্র করে নগরীর গুরুত্বপূর্ণ সরকারি অফিস এবং রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়সহ বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সম্পৃক্ত। অফিস এবং শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সঙ্গে সম্পৃক্তরা এ সড়কটি দিয়ে যাতায়াত করেন। তাই আমি মেয়র থাকাকালে সড়কটি চার লেনে উন্নীত করার জন্য পদক্ষেপ গ্রহণ করি। এখন তা বাস্তবায়িত হচ্ছে। ভূমি অধিগ্রহণ কাজ শেষ হলেই সড়কটি চার লেনে উন্নীত হবে।
পাচানি মাঠে এলাকায় বাঁধ এবং আলুপট্টি-তালাইমারি সড়কের নির্মাণ কাজ পরিদর্শনের সময় মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের সঙ্গে ছিলেন, সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার, সহসভাপতি মাহফুজুল আলম লোটন, উপ প্রচার সম্পাদক মীর ইশতিয়াক আহমেদ লিমনসহ নেতাকর্মীরা।