ওম পুরির মৃত্যু নিয়ে রহস্য

আপডেট: জানুয়ারি ১১, ২০১৭, ১২:০৩ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক



তার মৃত্যুতে পুরো বলিউড যখন শোক পালন করছে, ঠিক সেই সময়েই এই ব্যাপারে রহস্যের গন্ধ খুঁজে পেয়েছে পুলিশ। ওম পুরি মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টা আগেই নাকি নিজের স্ত্রীর কাছে যেতে চেয়েছিলেন। আর সেই সময়ে তার সাথে ছিলেন প্রযোজক খালিদ কিদওয়াই। এজন্যই ওশিওয়ারা পুলিশের সন্দেহের তীরটা তার দিকে যাচ্ছে।
ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানায়, সাবেক স্ত্রী নন্দিতা এবং ছেলে ইশানের সাথে দেখা করতে চেয়েছিলেন ওম পুরি। এমনকি তারা নাকি সেখানে গিয়েওছিলেন।
খালিদ জানান, “ওম পুরি তার ছেলের সাথে দেখা করতে চাইছিলেন। আমরা নন্দিতার বাড়িতে গিয়েও ছিলাম। কিন্তু তারা তখন পার্টিতে ছিল। নন্দিতার সাথে তার ফোনে ঝগড়াও হয়েছিল।”
নন্দিতার বাড়িতে গিয়ে নেশাও করেছিলেন ওম পুরি, “তিনি মদভর্তি গ্লাস নিয়ে ৪৫ মিনিট বসে ছিলেন। পরে যখন নন্দিতা আসেনি তখন মদের বোতল নিয়ে আমরা বের হয়ে আসি। তিনি পুরো বোতল শেষ করার পরই আমরা ফেরত যাই।”
১৬ বছর বয়সি ইশান মানসিক প্রতিবন্ধী। ওম পুরি তাকে অনেক বেশি ভালবাসতেন। স্বভাবতই তার দেখা না পেয়ে খুবই ক্ষুব্ধ ছিলেন।
উড়িষ্যা পুলিশ জানিয়েছে, তারা নন্দিতার কথা শোনার পরেই সিদ্ধান্ত নেবে, “যেহেতু খালিদ ওম পুরির সাথে ছিল তাই আমরা তার জবানবন্দি নিয়েছি। এখন নন্দিতার জবানবন্দি নেওয়ার পরেই আমরা ব্যাপারটা নিশ্চিত হতে পারবো। আমরা ধারনা করছি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েই তিনি মারা গিয়েছেন, তবে ময়নাতদন্তের পরেই বোঝা যাবে আসলে কী হয়েছে। মনে হয় তিনি পড়ে গিয়ে কপালে আঘাত পেয়েছিলেন। তিনি ঘরে একাই ছিলেন বলে আমরা জানি। আমরা এই মুহূর্তে আর কিছু বলতে পারছি না।” শুক্রবার সকালে ৬৬ বছর বয়সে মারা যান ওম পুরি।-বিডিনিউজ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ