কনে ৩, বর ৯

আপডেট: মার্চ ১৫, ২০১৭, ১২:০৯ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


আজব প্রথা! মাত্র তিন বছরের মেয়ের সঙ্গে নয় বছরের ছেলের বিয়ে দেওয়ার ঘটনা অবাক করার মতোই বৈকি।
পাকিস্তান শাসিত জম্মু ও কাশ্মীরের নিলম ভ্যালিতে সমাজ মোড়লরা পারিবারিক বিবাদ মেটাতে এই বিয়ের সিদ্ধান্ত দেয়। পাকিস্তান সমাজে এমন বিয়ে প্রায়ই দেখা যায়।
পাকিস্তানে গ্রাম মোড়লদের সভাকে জিরগা বলা হয়। বিয়ে, তালাকসহ বিভিন্ন বিষয়ে ফতোয়া দিয়ে থাকে এই সভা। জিরগার সিদ্ধান্ত মোতাবেক ওই দুই ছেলেমেয়ের বিয়ে দেওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে ‘ভানি’-এর অভিযোগে মামলা করেছে পুলিশ।
কোনো মেয়ের বাবা-ভাই অথবা অন্য কোনো পুরুষ আত্মীয়ের অপরাধের সাজা হিসেবে ওই মেয়েকে তার মতের বিরুদ্ধে শত্রু পক্ষের কারো সঙ্গে বিয়ে দেওয়াকে ভানি বলে। আবার কোনো যৌন নিপীড়নকারীর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট মেয়ের বিয়ে দিয়ে পুরুষদের সাজা দেয়ার সিদ্ধান্ত দিয়ে থাকে জিরগা। পাকিস্তানের সাংবিধানিক আইন অনুযায়ী এ ধরনের বিয়ে দেয়া অপরাধ।
আথমুকাম স্টেশন হাউস অফিসার মোহাম্মদ ফারুক জানিয়েছেন, পাশের গ্রামের আওরঙ্গজেবের মেয়ের সঙ্গে মোহাম্মদ ইউনিসের ছেলের বিয়ে দিয়ে দুজনের মধ্যকার বিবাদ মেটানোর সিদ্ধান্ত নেয় জিরগা।
আওরঙ্গজেব ও ইউনিস মামলায় জড়িয়ে পড়েন। আওরঙ্গজেবের বিরুদ্ধে ৫ লাখ রুপির মানহানি মামলা করেন ইউনিস। কিন্তু এ পরিমাণ অর্থ পরিশোধ করতে না পারায় ঘুষ দিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করায় ইউনিস।
পরে এ ঘটনা জিরগায় তোলা হয়। ইউনিসের ছেলের সঙ্গে জোর করে বিয়ে দেয়া হয় আওরঙ্গজেবের মেয়ের। কিন্তু আওরঙ্গজেব অভিযোগ করেছে, জোর করে তার মত নেওয়া হয়।
তথ্যসূত্র : ডন অনলাইন।- রাইজিংবিডি