কন্ডিশনিং ক্যাম্পের অপেক্ষায় ইমরুল

আপডেট: জুলাই ৫, ২০১৭, ১২:৩২ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


আগস্টের মাঝামাঝি আসার কথা অস্ট্রেলিয়ার। পরের মাসে বাংলাদেশ দল যাবে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে। সামনে তাই টাইগারদের কঠিন পরীক্ষা। যে পরীক্ষার ‘প্রস্তুতি’ শুরু হয়ে যাচ্ছে ১০ জুলাই। সেদিন থেকে শুরু হবে ক্রিকেটারদের কন্ডিশনিং ক্যাম্প। আর এই ক্যাম্পের দিকে তাকিয়ে জাতীয় দলের বাঁহাতি ওপেনার ইমরুল কায়েস।
কন্ডিশনিং ক্যাম্পের জন্য ২৯ জন ক্রিকেটারের নাম ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। প্রথম দুই সপ্তাহ ফিটনেস নিয়ে কাজ করবেন খেলোয়াড়রা। এরপর শুরু হবে স্কিল অনুশীলন।
ক্যাম্পের জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছেন ইমরুল। মঙ্গলবার মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে তিনি সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘অস্ট্রেলিয়া সিরিজের আগে কন্ডিশনিং ক্যাম্প হবে। সেখানে প্রায় তিন সপ্তাহ কাজ করতে পারবো। আমি মনে করি, ফিটনেসের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ এই ক্যাম্প। ফিটনেস ঠিক রাখাই আমাদের প্রথম লক্ষ্য।’
ওয়ানডেতে অনিয়মিত হলেও সাম্প্রতিক সময়ে টেস্টে ইমরুল বাংলাদেশ দলের নিয়মিত সদস্য। সাদা পোশাকে দুটো দুর্দান্ত জুটির অংশীদারও তিনি। ২০১৫ সালে খুলনায় পাকিস্তানের বিপক্ষে তামিম ইকবালের সঙ্গে ৩১২ রানের জুটি গড়েছিলেন ইমরুল। তার আগের বছর চট্টগ্রামে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে শামসুর রহমানের সঙ্গে গড়েছিলেন ২৩২ রানের জুটি। প্রথম ও দ্বিতীয় উইকেটে দুটোই বাংলাদেশের রেকর্ড জুটি।
চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে দুটো ম্যাচে সুযোগ পেলেও ইমরুল তেমন সুবিধা করতে পারেননি। ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ১৯ ও ৬ রানের ব্যর্থতা ঝেড়ে ফেলে অস্ট্রেলিয়া সিরিজে ভালো খেলতে তিনি মরিয়া। দুই টেস্টের সিরিজে কোনও ব্যক্তিগত লক্ষ্য আছে কিনা জানতে চাইলে তার মন্তব্য, ‘আমি ব্যক্তিগত টার্গেট সেট করে খেলি না। সেটা করলে নিজের ওপরে প্রেসার তৈরি হয়ে যায়। যদি সুযোগ পাই, ইনিংস বড় করার চেষ্টা করবো।’
অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে বাংলাদেশ তেমন টেস্ট খেলার সুযোগ পায় না। এ কারণে ইমরুল সিরিজটাকে বাড়তি গুরুত্ব দিচ্ছেন, ‘অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে টেস্ট খেলা প্রত্যেকের জন্যই অনেক বড় সুযোগ। খেলার সুযোগ পেলে কাজে লাগানোর চেষ্টা করবো।’
অস্ট্রেলিয়ার শক্তিশালী পেস আক্রমণ নিয়ে তার অভিমত, ‘অস্ট্রেলিয়ার পেস আক্রমণ খুবই ভালো। তবে এটা নিয়ে দুশ্চিন্তা করছি না আমরা। এখন বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা পেস আক্রমণের বিপক্ষে খেলতে ভয় পায় না।’
গত বছর ইংল্যান্ডকে টেস্টে হারিয়ে দিয়েছিল বাংলাদেশ। ইমরুলের বিশ্বাস, দলের প্রত্যেকে দায়িত্ব নিয়ে খেলতে পারলে অস্ট্রেলিয়াকেও হারানো সম্ভব, ‘কোন দল শক্তিশালী আর কোন দল দুর্বল তা ভাবার কোনও দরকার নেই। আমরা মাঠে দল হিসেবে খেলতে পারলে সাফল্য আসবেই। কার বিপক্ষে খেলতে নামছি, তা চিন্তা করে লাভ নেই।’-বাংলা ট্রিবিউন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ