করোনাভাইরাস: ইতালিতে একদিনে ৪৭৫ মৃত্যু, যুক্তরাজ্যে স্কুল বন্ধ

আপডেট: মার্চ ২০, ২০২০, ১২:৫২ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী নভেল করোনাভাইরাসে ইতালিতে একদিনেই রেকর্ড ৪৭৫ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে দেশটির কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।
এ নিয়ে দেশটিতে মোট মৃতের সংখ্যা তিন হাজারের কাছাকাছি পৌঁছে গেছে।
প্রাণঘাতী কভিড-১৯ এর সংক্রমণ রুখতে যুক্তরাজ্য বুধবার স্কুল বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।
ডিসেম্বরের শেষদিকে চিনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী এ ভাইরাসটি এখন ইউরোপ দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। ইতালির পাশাপাশি স্পেন, ফ্রান্স, জার্মানি ও যুক্তরাজ্যেও প্রতিদিন আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে।
বুধবার পর্যন্ত ইতালিতে কভিড-১৯ এ মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৩৫ হাজার ৭১৩ তে পৌঁছেছে বলে জানিয়েছে বিবিসি।
আক্রান্তদের মধ্যে চার হাজারের সামান্য বেশি রোগী সেরেও উঠেছেন।
ভাইরাস উপদ্রুত লম্বার্দি অঞ্চলেই বুধবার ৩১৯ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।
এখন পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী কভিড-১৯ এ মোট আক্রান্তের সংখ্যা দুই লাখ ছাড়িয়ে গেছে। মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ৭৫৮ জনে।
পরিস্থিতি মোকাবেলায় বিভিন্ন দেশ স্কুল, কলেজসহ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ এবং গণপরিবহণ ও ধর্মীয় উপাসনালয়সহ যেসব স্থানে লোকসমাগম বেশি থাকে সেগুলোর ওপর নানান ধরনের বিধিনিষেধ দিয়েছে। বিদেশি নাগরিকদের প্রবেশাধিকারের পাশাপাশি বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে একের পর এক সীমান্তও।
সংক্রমণ রুখতে বুধবার যুক্তরাজ্যও শুক্রবার থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত সব স্কুল, কলেজ ও নার্সারি বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে।
করোনাভাইরাসের বিস্তার রুখতে সরকার সময়মতো পদক্ষেপ নিচ্ছে না বিরোধীদের এমন সমালোচনার মুখে বরিস জনসনের সরকার এ পদক্ষেপ নিল বলে জানিয়েছে রয়টার্স।
যুক্তরাজ্যের শিক্ষা মন্ত্রী গ্যাভিন উইলিয়ামসন বুধবার পার্লামেন্টে বলেছেন, সব স্কুল বন্ধের ঘোষণা দিলেও স্বাস্থ্য খাতের মতো প্রয়োজনীয় খাতের কর্মীদের সন্তানদের জন্য কিছু স্কুল খোলা রাখা হবে।
“আমরা এখন এমন পর্যায়ে আছি, যেখানে ভাইরাসের ছড়িয়ে পড়ার গতি, আমাদের ধারণার চেয়েও বেশি হচ্ছে,” বলেছেন তিনি।
দেশটিতে বুধবার পর্যন্ত দুই হাজার ৬২৬ জন কভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয়েছে। মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে ১০৪ জনের।
তথ্যসূত্র: বিিিনউজ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ