করোনায় দিল্লিতে ৬ মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ মৃত্যু ৪৫

আপডেট: জানুয়ারি ২৩, ২০২২, ১২:৫১ অপরাহ্ণ


সোনার দেশ ডেস্ক :


ভারতের রাজধানী দিল্লিতে করোনাভাইরাস সংক্রমণ আশঙ্কাজনক হারে বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে মৃত্যুও বাড়ছে। ৬ মাসের মধ্যে দেশটিতে একদিনে সর্বোচ্চ ৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। যা গত ৫ জুনের পর সর্বোচ্চ মৃতের সংখ্যা।

৫ জনু ৬৮ জনের মৃত্যু হয়েছিল। ভারতের সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভি এ খবর জানিয়েছে।
খবরে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় শহরটিতে ১১ হাজার ৪৮৬ জন করোনা শনাক্ত হয়েছেন। গতকাল শনাক্ত হয়েছিলেন ১০ হাজার ৭৫৬ জন। অর্থাৎ শুক্রবারের তুলনায় শনিবার ৭ শতাংশ রোগী বেশি শনাক্ত হয়েছে।

শুক্রবার দিল্লিতে ৫৯ হাজার ৬২৯টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়, পরদিন শনিবার সেখানে ৭০ হাজার ২২৬টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। শনিবার শনাক্তের হার ৩০.৬৪ শতাংশ। গত ১৫ জানুয়ারি এ হার ছিল ১৬.৩৬ শতাংশ।

দিল্লিতে এখন পর্যন্ত ১ কোটি ৭৮ লাখ ২ হাজার ৫১৪ রোগী শনাক্ত হয়েছেন। মোট মারা গেছেন ২৫ হাজার ৫৮৬ জন।

শুক্রবার মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল অনুমোদিত শহরে একসপ্তাহের কারফিউ জারি এবং পরিস্থিতি উন্নতির দিকে না যাওয়া পর্যন্ত দোকানপাট শপিংমল বন্ধ রাখার একটি প্রস্তাব প্রত্যাখান করেছেন দিল্লির লেফটেন্যান্ট গভর্নর অনিল বৈজাল।

তবে তিনি ৫০ শতাংশ মানুষের উপস্থিতিতে অফিস চালু রাখার প্রস্তাবে সম্মতি দিয়েছেন।
তথ্যসূত্র: জাগোনিউজ