করোনা আন্তর্জাতিক শান্তি ও নিরাপত্তার জন্য হুমকি: জাতিসংঘ

আপডেট: এপ্রিল ১০, ২০২০, ৬:২৫ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


করোনাভাইরাস মহামারি আন্তর্জাতিক শান্তি ও নিরাপত্তার জন্য হুমকি হয়ে উঠছে বলে নিরাপত্তা পরিষদকে সতর্ক করলেন জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস। তার মতে, ‘সামাজিক অস্থিরতা ও সহিংসতা বৃদ্ধি পাবে যা কোভিড-১৯ রোগের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে আমাদের ক্ষমতাকে বাধাগ্রস্ত করবে।’
কোভিড-১৯ রোগ বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়ে হাজার হাজার প্রাণ কেড়ে নেয়ার সময় থেকে নীরবতা পালন করছে জাতিসংঘের সবচেয়ে শক্তিশালী সংগঠন নিরাপত্তা পরিষদ। তাদেরকে এবার ভাইরাস মোকাবিলায় ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানালেন গুতেরেস। তাদের সংশ্লিষ্টতা ‘এই উদ্বেগজনক সময়ে ইতিবাচক ভূমিকা রাখতে পারবে’।
করোনা মহামারির মধ্যে নিরাপত্তা পরিষদের এটাই প্রথম বৈঠক। তারা সংক্ষিপ্ত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, ‘সংঘাত আক্রান্ত দেশগুলোতে কোভিড-১৯ মহামারির সম্ভাব্য প্রভাব সম্পর্কে মহাসচিবের সব প্রয়াসকে সমর্থন জানাচ্ছি এবং আমাদের মনে হয়, ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোর জন্য ঐক্য ও সংহতির খুব দরকার।’
গত ২৩ মার্চ সব ধরনের বৈশ্বিক সংঘাত বন্ধে সব দেশকে যুদ্ধবিরতির আহ্বান জানিয়ে গুতেরেস বলেছিলেন, এই সংকট ‘আন্তর্জাতিক আঞ্চলিক ও জাতীয় সংঘাত নিরসনকে বাধাগ্রস্ত করছে, ঠিক যখন তাদের সবচেয়ে বেশি দরকার ছিল।’
এই মহামারি থেকে বৈশ্বিক নিরাপত্তার জন্য বেশ কয়েকটি ঝুঁকির কথা উল্লেখ করেন জাতিসংঘ প্রধান। তার মতে বেশ কয়েকটি দেশে করোনার ফায়দা নিতে পারে জঙ্গী গোষ্ঠী, জৈবিক অস্ত্রের আক্রমণ, অর্থনৈতিক অস্থিতিশীলতা, নির্বাচন স্থগিত করা থেকে রাজনৈতিক উত্তেজনা এবং বিভাজন তৈরি হতে পারে।
গুতেরেস জানান, ৭৫ বছর আগে প্রতিষ্ঠিত হওয়া জাতিসংঘ প্রথমবার কঠিন পরীক্ষার মুখোমুখি এবং ‘এটি একটি প্রজন্মের লড়াই।’
তথ্যসূত্র: রাইজিংবিডি

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ