করোনা ভাইরাস বিস্তার রোধে রাজশাহীতে সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত

আপডেট: মার্চ ২৬, ২০২০, ১২:২৬ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক


রাজশাহীতে সমন্বয় সভায় সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনসহ সাংসদ ও স্থানীয় প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ সোনার দেশ

করোনা ভাইরাস বিস্তার রোধে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন, বিভাগীয় প্রশাসন ও জেলা প্রশাসন পর্যায়ে গঠিত তিনটি কমিটির সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বুধবার বিকেলে রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়।
সভায় করোনো সংক্রমণ রোধে নাগরিকদের চলাচল সীমিতকরণে কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ, আক্রান্ত রোগীকে শনাক্তকরণ, আক্রান্ত রোগীদের জন্য চিকিৎসা ব্যবস্থা, চিকিৎসক ও নার্সদের নিরাপত্তায় নিরাপত্তা সরঞ্জাম সংগ্রহ, আক্রান্ত কেউ মৃত্যুবরণ করলে যথাযথ প্রক্রিয়ায় দাফন/সৎকারের ব্যবস্থা গ্রহণসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা ও সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।
সভায় সভাপতিত্ব করেন, রাজশাহী বিভাগীয় কশিমশনার হুমায়ুন কবীর খোন্দকার। সভায় মতামত ব্যক্ত করেন, সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন, রাজশাহী-২ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা, রাজশাহী রেঞ্জ ডিআইজি একেএম হাফিজ আক্তার, রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার হুমায়ুন কবির খোন্দকার, পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. গোপেন্দ্রনাথ আচার্য্য, রাজশাহী জেলা প্রশাসক হামিদুল হক, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল জামিলুর রহমান, রাজশাহীর সিভিল সার্জন ডা. মহা. এনামুল হক, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর ডা. নওশাদ আলী, বিএমএ রাজশাহীর সভাপতি প্রফেসর ডা. এবি সিদ্দিকী প্রমুখ।
সভা শেষে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন সাংবাদিকদের বলেন, তিনটি কমিটি একত্রিত হয়ে সমন্বয় সভা করা হয়েছে। সভায় কে কী করেছে, কার কী কাজ বাকি আছে সেগুলো নিয়ে আলোচনা হয়েছে। হোম কোয়ারেন্টাইনে বাইরে সন্দেহজনক আক্রান্ত ব্যক্তিকে কোথায় রাখা হবে, তা নির্ধারণ করা হয়েছে। করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আইসিইউ ইউনিট ব্লকটিকে আলাদা করা, আক্রান্ত রোগীকে চিহ্নিত করার ব্যবস্থা, চিকিৎসক ও নার্সদের নিরাপত্তায় নিরাপত্তা সরঞ্জাম আনাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। আমরা সকলে সমন্বিতভাবে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে কাজ করছি, এটি অব্যাহত থাকবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ