কুড়ি জনের সংসারে একমাত্র উপার্জনকারী, ৮৬-তেও খেলা দেখাচ্ছেন ‘ওয়ারিওর আজি’

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১, ২০২২, ১:২৮ অপরাহ্ণ

লাঠি-খেলা দেখাচ্ছেন শান্তা।

সোনার দেশ ডেস্ক :


সেই আট বছর বয়স থেকে শুরু করেছিলেন। কখনও লাঠিখেলা কখনও দড়ির ওপর দিয়ে হেঁটে চলে যাওয়া। ৮৬ বছরে এসে এখনও খেলা দেখিয়ে যাচ্ছেন তিনি, এত টুকু ভাটা পড়েনি তাঁর উৎসাহে।

তিনি পুণের শান্তা বালু পাওয়ার বা ‘ওয়ারিয়র আজি’।
গোসাভি বস্তির রাস্তায় খেলা দেখানো শান্তা পুণেতে বেশ পরিচিত নাম। লাঠিখেলা দেখিয়ে তাঁর উপার্জনে সংসারের কুড়ি জনের পেট চলে।

তিনি শুধু রাস্তায় খেলা দেখান তা নয়, তাঁর নিজস্ব একটি অ্যাকাডেমি রয়েছে যেখানে তিনি বাচ্চাদের মার্শাল আর্টস সেখান। ২০২০ সালে যখন আজি-র লাঠিখেলা নেটমাধ্যমে ভাইরাল হয়, তখন অনেকে তাঁকে সাহায্য করতে এগিয়ে এসেছিলেন।

যাঁদের মধ্যে রীতেশ দেশমুখ এবং সনু সুদও ছিলেন। তাঁরাই শান্তাকে এই অ্যাকাডেমি গড়তে সাহায্য করেন। কিন্তু দেশে করোনার বাড়বাড়ন্ত, এবং ছেলের চাকরি খোয়ানো— এই দুই কারণ তাঁকে ফের রাস্তায় নেমে খেলা দেখাতে বাধ্য করেছে।

এই সব বাধা শান্তার মধ্যে সব সময় আলাদা শক্তির সঞ্চার করে। শান্তার কথায়, ‘‘আমি যত দিন বেঁচে আছি, বাচ্চাদের কখনও খালি পেটে থাকতে হবে না।’’

প্রসঙ্গত, ১৯৭২ সালের ধর্মেন্দ্র ও হেমা মালিনী অভিনীত ‘সীতা অউর গীতা’ ছবিতে একটি চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন শান্তা।
তথ্যসূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা