ক্র্যাক করে পেইড সফটঅয়্যার ব্যবহার করা কি ঠিক?

আপডেট: নভেম্বর ২৯, ২০২২, ১:১২ পূর্বাহ্ণ

এ.এস.এম. শাহরিয়ার জাহান, তথ্য-প্রযুক্তিবিদ:


মোটেই ঠিক নয়। নৈতিকভাবেও ঠিক নয়, আবার নিরাপত্তার জন্যও ঠিক নয়। এছাড়া ক্র্যাক সফটঅয়্যার ব্যবহার করার ফলে আপনার মূল্যবান কম্পিউটারটিরও ক্ষতি হতে পারে। কোন পেইড সফটওয়্যার বিনামূল্যে ব্যবহার করার পরামর্শ হিসেবে কেউ আপনাকে সফটঅয়্যারটির crack ভার্সন এর লিংক দিতে পারে। অনলাইনে সার্চ দিলেও প্রচুর ক্র্যাক টুলের লিংক পাওয়া যায়। তবে ভুল করেও কখনো এইসব ক্র্যাক ব্যবহার করা উচিৎ নয়। কারণ অধিকাংশ ক্র্যাক সফটওয়্যার-ই হলো ম্যালওয়ার। এই ক্র্যাকরূপী ম্যালঅয়্যারটি হয়তো আপনার কম্পিউটারের ক্ষতি করছে অথবা হ্যাকারদের জন্য আপনার ব্যক্তিগত নিরাপত্তাকে অনলাইনে উন্মুক্ত করে দিচ্ছে।

যেমন ধরুন Photoshop একটি পেইড সফটওয়্যার। আইনত আজীবন এটি ফ্রি ব্যবহার করার কোন উপায় নেই। ফ্রিতে কিছুদিনের জন্য Trial হয়তো ব্যবহার করতে পারবেন কিন্তু তারপর Photoshop ব্যবহার করতে হলে আপনাকে পেমেন্ট করতে হবে। কিন্তু অনেকেই আছেন যারা Photoshop এর ক্র্যাক ভার্সন ব্যবহার করে থাকেন। এখন এই ক্র্যাকটি আসলে কতটুকু নিরাপদ তা তারা ভাবেন না বা জানেন না।

কিন্তু তাহলে সমাধান কী? একে সফটঅয়্যারগুলি প্রয়োজনীয় এবং মূল্যবান। সবার পক্ষে এতো দামী সফটঅয়্যার ক্রয় করে ব্যবহার করা সম্ভব নয়। সেক্ষেত্রে আপনার প্রয়োজনীয় সফটওয়্যারগুলির বিকল্প খুঁজে নিতে পারেন। মার্কেটে অনেক বিকল্প ফ্রি সফটওয়্যারও পাওয়া যায়। যেমন Photoshop -এর চমৎকার একটি বিকল্প হতে পারে Gimp যা সম্পূর্ণ ফ্রি।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ