গোদাগাড়ীতে তিন মাসে করোনায় আক্রান্ত ৫৮ ও মৃত্যু দুইজন স¦াস্থ্য বিধি মানতে উপজেলা প্রশাসনকে কঠোর হওয়ার নির্দেশ সচিবের

আপডেট: জুলাই ২৭, ২০২০, ১১:০০ অপরাহ্ণ

গোদাগাড়ী প্রতিনিধি


রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে করোনা ভাইরাস (কোভিড ১৯)আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। ৩১ মে থেকে ২৭ জুলাই পর্যন্ত উপজেলায় ৫৮ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ও দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। ৩৭১ জনের নমনা সংগ্রহ করা হলে করোনা ভাইরাস নেগেটিভ হয় ৩০৫ জন। এ পর্যন্ত ৯জন সুস্থ হয়েছে। শুরুর দিকে করোনা ভাইরাস ঝুকি এড়াতে প্রশাসনের সচেতনতায় বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহনের কারণে কয়েকমাস উপজেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত শূণ্যের কোঠায় ছিল। কিন্তু লোকজনের স্বাস্থ্য বিধি মানার ক্ষেত্রে অনীহা ও মাস্ক না পরায় উপজেলায় করোনা ভাইরাসে ঝুঁকি বেড়ে যাচ্ছে। এমন অবস্থায় গতকাল সোমবার সকাল ১১ টার দিকে গোদাগাড়ী উপজেলা প্রশাসনের সঙ্গে জুম ভিডিওর মাধ্যমে মতবিনিময় করেছেন জাতীয় পরিকল্পনা ও উন্নয়ন একাডেমীর মহাপরিচালক(সচিব)আবুল কাশেম। এ সময় সচিবের কাছে গোদাগাড়ী উপজেলার করোনা পরিস্থিতি তুলে ধরেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও)আলমগীর হোসেন।সভায় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম,কাকনহাট পৌর মেয়র আব্দুল মজিদ,উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ আবু তালেব,গোদাগাড়ী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) খাইরুল ইসলাম,উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক আব্দুর রশিদ,গোদাগাড়ী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান রুহুল আমিন,বাসুদেবপুর ইউপি চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান বেবি প্রমূখ।সচিব আবুল কাশেম বলেন, কোরবানি পশুর হাটে ও ঈদুল আযহার নামাজে প্রত্যকে মাস্ক পরিধান ও স্বাস্থ্য বিধি বজায় রাখতে হবে। সচেতনতার পাশাপাশি মোবাইল কোট পরিচালনা করতে হবে।