বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী

গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে বাংলাদেশ

আপডেট: November 19, 2019, 12:47 am

সোনার দেশ ডেস্ক


এমার্জিং এশিয়া কাপের তিন ম্যাচের তিনটিতেই জিতে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে উঠেছে বাংলাদেশ। গতকাল শেষ ম্যাচে শান্ত-সৌম্যরা ৮ উইকেটে হারিয়েছে নেপালকে।
নেপাল টস হেরে ব্যাট করতে নেমে বাংলাদেশের বোলারদের তোপের মুখে পড়ে। ৪৪.৩ ওভারে মাত্র ১৩৮ রানে অলআউট হয়ে যায় তারা। ব্যাট হাতে নেপালের সম্পাল কামি সর্বোচ্চ ৩৮ রান করেন। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২২ রান করেন জ্ঞানেন্দ্র মাল্লা। করণ কেসি ১৮, আরিফ শেখ ১১ ও কুশাল ভুর্তেল ১০ রান করেন। বাকিদের কেউ দুই অঙ্কের কোটা ছুঁতে পারেনি।
বল হাতে এই ম্যাচে ৩ উইকেট নেন সুমন খান। প্রথম ম্যাচে হংকংয়ের বিপক্ষে ৪টি ও ভারতের বিপক্ষে দ্বিতীয় ম্যাচে ৪টি উইকেট নিয়েছিলেন তিনি। ৩টি উইকেট নেন মিনহাজুল আবেদিন আফ্রিদি। ২টি করে উইকেট নেন তানভীর ইসলাম ও মেহেদী হাসান।
১৩৯ রানের জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে ৩৪ রানের মাথায় সৌম্য সরকারের উইকেট হারায় বাংলাদেশ। এরপর মোহাম্মদ নাঈম ও নাজমুল হোসেন শান্ত মিলে দলীয় সংগ্রহকে ১১৩ পর্যন্ত টেনে নেন। এই রানে ফিরেন নাঈম। ৬ চারে ৪৫ রান করে যান তিনি। সেখান থেকে শান্ত ও ইয়াসির আলী মিলে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন। শান্ত ৫৬ বল খেলে ৬ চার ও ২ ছক্কায় ৫৯ রানে অপরাজিত থাকেন। তার সঙ্গে ২ চার ও ১ ছক্কায় ১৮ রানে অপরাজিত থাকেন ইয়াসির।
৩ ম্যাচ থেকে পূর্ণ ৬ পয়েন্ট নিয়ে বাংলাদেশ গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে উঠেছে। ৩ ম্যাচের দুটিতে জিতে ৪ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ রানার্স-আপ হয়ে সেমিফাইনালে উঠেছে ভারতও। এদিকে ‘এ’ গ্রুপ থেকে পূর্ণ ৬ পয়েন্ট নিয়ে পাকিস্তান ও ৪ পয়েন্ট নিয়ে আফগানিস্তান সেমিফাইনালে উঠেছে।
২০ ও ২১ নভেম্বর মিরপুর শের-ই-বাংলায় অনুষ্ঠিত হবে দুটি সেমিফাইনাল। আর ২৩ নভেম্বর একই মাঠে হবে ফাইনাল। এমার্জিং এশিয়া কাপের এবারের আসরের আয়োজক বাংলাদেশ। কক্সবাজার ও ঢাকায় টুর্নামেন্টের ম্যাচগুলো অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এবারের আসরে এশিয়ার আটটি দেশ অংশ নিয়েছে। ‘এ’ গ্রুপে ছিল শ্রীলঙ্কা, পাকিস্তান, আফগানিস্তান ও ওমান। আর ‘বি’ গ্রুপে ছিল বাংলাদেশ, ভারত, হংকং ও নেপাল।